kalerkantho

শুক্রবার । ২৪ বৈশাখ ১৪২৮। ৭ মে ২০২১। ২৪ রমজান ১৪৪২

আমতলীতে জমি দখল ও ঘর তোলা নিয়ে সংঘর্ষে জড়াল দুপক্ষ, আহত ৫

আমতলী (বরগুনা) প্রতিনিধি   

১৭ এপ্রিল, ২০২১ ১৭:৩২ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



আমতলীতে জমি দখল ও ঘর তোলা নিয়ে সংঘর্ষে জড়াল দুপক্ষ, আহত ৫

বরগুনার আমতলী উপজেলার হলদিয়া ইউনিয়নের পূর্বচিলা গ্রামে বিরোধপূর্ণ জমি দখল ও ঘর তোলাকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষে মহিলাসহ ৫ জন গুরুতর আহত হয়েছেন। এদের মধ্যে ৪ জনকে বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

স্থানীয় ও আহত সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার পূর্বচিলা গ্রামের মনির হাওলাদার গং ও তার চাচাতো ভাই মোতালেব হাওলাদার গংদের সাথে গত ২ বছর ধরে ৩০ শতাংশ জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছে। শনিবার সকাল ৯টার দিকে মোতালের হাওলাদারের নেতৃত্বে ৭/৮ জন লোক ওই জমি দখল করে সেখানে ঘর তুলতে গেলে প্রতিপক্ষ মনির হাওলাদার গংরা এতে বাধা দেন। এক পর্যায়ে উভয়পক্ষ দেশীয় অস্ত্র ও লাঠিসোটা নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। এতে উভয় পক্ষের ৫ জন আহত হয়। আহতরা হলেন

মনির হাওলাদার অভিযোগ করে বলেন, আমাদের প্রতিপক্ষ চাচাতো ভাই মোতালেব হাওলাদার গংদের সাথে পারিবারিকভাবে গত ২ বছর ধরে ৩০ শতাংশ জমি নিয়ে আমাদের সাথে বিরোধ চলে আসছে। আজ ওইয় জমিতে তারা লোকজন নিয়ে ঘর তুলতে গেলে আমরা তাতে বাধা দেই। এ সময় আমাদের বাড়িতে ঢুকে আমার স্ত্রীসহ তিন জনকে কুপিয়ে ও পিটিয়ে আহত করে। আমি এর বিচার চাই।

এ বিষয়ে জানার জন্য প্রতিপক্ষ মোতালেব হাওলাদার মুঠোফোনে পাল্টা অভিযোগ করেন, ওই জমি নিয়ে গত বছর আমাদের মীমাংসা হয়েছে। আজ সকালে আমি ওই জমিতে ঘর তুলতে গেলে মনির হাওলাদার ও তার লোক এতে বাধা প্রদান করে ঘর ভেঙে ফেলে।

আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক ডা. ফারজানা আক্তার দিনা বলেন, আহত ৫ জনকে যথাযত চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। এদের মধ্যে ৪ জনকে উন্নত চিকিৎসার জন্য বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

আমতলী থানা ওসি মো. শাহআলম হাওলাদার বলেন, এ ঘটনা আমাদের জানা নেই। ক্ষতিগ্রস্ত পরিবার এ বিষয়ে থানায় লিখিত অভিযোগ দিলে তদন্তপূর্বক আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।



সাতদিনের সেরা