kalerkantho

শুক্রবার। ৩১ বৈশাখ ১৪২৮। ১৪ মে ২০২১। ০২ শাওয়াল ১৪৪২

কালকিনিতে পরাজিত মেয়র প্রার্থীর সমর্থকদের অর্ধশত বাড়ি ভাঙচুর

মাদারীপুর প্রতিনিধি   

১৬ এপ্রিল, ২০২১ ১৮:৩৬ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



কালকিনিতে পরাজিত মেয়র প্রার্থীর সমর্থকদের অর্ধশত বাড়ি ভাঙচুর

মাদারীপুরের কালকিনির পৌরসভা নির্বাচনে পরাজিত স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী মশিউর রহমান সবুজের সমর্থকদের অর্ধশত ঘরবাড়ি ভাঙচুর-লুটপাটের অভিযোগ উঠেছে সরকার দলীয় প্রার্থীর সমর্থকদের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় নারীসহ আহত হয়েছেন ৮ জন। বৃহস্পতিবার রাত ৯টার দিকে কালকিনি পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ডের বিভাগদী এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয়, আহত, পুলিশ সূত্রে জানা যায়, মাদারীপুরের কালকিনি পৌরসভা নির্বাচনে স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী মশিউর রহমান সবুজ পরাজিত হয়। পরাজিত হবার পর আওয়ামী লীগ মনোনীত বিজয়ী প্রার্থী এস এম হানিফের সমর্থকদের হামলার ভয়ে এলাকা ছাড়েন স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থকরা।

বৃহস্পতিবার রাত ৯টার দিকে পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ডের বিভাগদী এলাকার সাইদুল হাওলাদার ঢাকা থেকে নিজ এলাকায় আসলে নৌকার সমর্থক আউয়াল সরদারের সাথে কথা কাটাকাটি হয়। একপর্যায় দুজনের মধ্যে হাতাহাতির ঘটনাও ঘটে। পরে আউয়াল সরদারের নেতৃত্বে দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে বিভাগদী এলাকার পরাজিত স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী মশিউর রহমান সবুজের সমর্থক সাইদুলের বাড়িঘরসহ অর্ধশত বসতঘরে হামলা চালিয়ে ভাঙচুর ও লুটপাট করা হয়।

হামলার সময় ঘরে থাকা নারীদের হেনস্তা করার অভিযোগ ওঠেছে। বাধা দিতে গেলে পিটিয়ে আহত করা হয় নারীসহ ৮ জনকে। এ ঘটনার পর পুরো এলাকায় বিরাজ করছে থমথমে পরিস্থিতি।

স্বতন্ত্র পরাজিত মেয়র প্রার্থী মশিউর রহমান সবুজ জানান, অতর্কিত হামলা চালিয়ে আমার সমর্থকদের বাড়িঘর ভাঙচুর ও লুটপাট করেছে নৌকার সমর্থকরা। আইন সবার জন্য সমান, আমি এর সঠিক বিচার চাই।

আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র এস এম হানিফ জানান, এটা আমার কোনো লোক করেনি। আমি চাই যারা করছে তাদের আইনের আওতায় আনা হোক। অপরাধী সেই যেই হোক সে অপরাধী, তার কোনো ক্ষমা নেই।

মাদারীপুরের কালকিনি থানার ওসি ইশতিয়াক আশফাক রাসেল বলেন, যোগাযোগ ব্যবস্থা খারাপ হওয়ায় পুলিশের ঘটনাস্থলে যেতে একটু দেরি হয়েছিল। তবে, বড় ধরনের ক্ষতি হওয়ার আগেই পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে। এই ঘটনায় সব ধরনের আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। কেউ ছাড় পাবে না।

প্রসঙ্গত, গত ৩১ মার্চ অনুষ্ঠিত হয় মাদারীপুরের কালকিনি পৌরসভা নির্বাচন। এর আগে গত ৬ ফেব্রুয়ারি নির্বাচনী প্রচারণা থেকে নিখোঁজ হন মশিউর রহমান সবুজ। এরই প্রতিবাদে বিক্ষোভ নিয়ে কালকিনি থানা ঘেরাও করে সবুজের সমর্থকরা। নিখোঁজের ১৩ ঘণ্টা পরে নিজ বাড়ি কৃষ্ণনগরে ফিরে আসেন মশিউর রহমান সবুজ।



সাতদিনের সেরা