kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৭ বৈশাখ ১৪২৮। ১০ মে ২০২১। ২৭ রমজান ১৪৪২

চাঁদার টাকা না পেয়ে হিন্দু বাড়িতে হামলা-ভাঙচুর

পিরোজপুর প্রতিনিধি   

১৪ এপ্রিল, ২০২১ ০৯:৪৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



চাঁদার টাকা না পেয়ে হিন্দু বাড়িতে হামলা-ভাঙচুর

সিসিটিভি ফুটেজে ধরা পড়া হামলার দৃশ্য।

পিরোজপুর পৌর এলাকার মণ্ডলপাড়ার রতন মিস্ত্রীর বাড়িতে রেন্ট-এ-কারের চাঁদার টাকা না পেয়ে হামলা ও ভঙচুরের ঘটনা ঘটেছে। মঙ্গলবার (১৩ এপ্রিল) রাতে স্থানীয় জাকারিয়ার নেতৃত্বে দেশীয় অস্ত্র ও লাঠিসোঁটা নিয়ে হামলা চালায় একদল চাঁদাবাজ। বাড়ির লোকজনের চিৎকারে এলাকাবাসী জড়ো হলে তারা পালিয়ে যায়। এ সময় রতন মিস্ত্রীর একটি গাড়ির গ্যারেজ ভাঙচুর করে এবং ঘরে লাঠি ও দা দিয়ে আঘাত করে।

ঘটনার পর এলাকাবাসী পুলিশে খবর দিলে সদর থানার ওসির নেতৃত্বে একদল পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে। এ সময় রতন মিস্ত্রীর বাসার সিসিটিভি ফুটেজ দেখে রাতেই জাকারিয়াসহ তিনজনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

এ ব্যপারে রতন মিস্ত্রী বলেন, গত সোমবার থেকে জাকারিয়া বাহিনী রেন্ট-এ-কার ভাড়ার ওপর অসহনীয় চাঁদা দাবি করে আসছিল। বনিবনা না হওয়ায় রুবেল নামের এক ড্রাইভারকে রেন্ট-এ-কার স্ট্যান্ডেই মারধর করে। যেহেতু আমার নিজের তিনটি গাড়ি ভাড়ায় চলে, তাই আমি মধ্যস্থতা করতে এগিয়ে আসি। যাত্রীপ্রতি মাথাপিছু ৫০ টাকা দিতে আমরা রাজিও হই। তাদের দাবি ছিল প্রতি গাড়ি বাবদ চার হাজার টাকা। করোনা পরিস্থিতি বিবেচনায় মাথা পিছু ৫০ টাকায় রাজি হয়ে তাঁরা ওই স্থান ত্যাগ করে। এরপর মঙ্গলবার রাতে জাকারিয়ার নেতৃত্বে অর্ধশতাধিক লোক আমার বাড়িতে হামলা করে ও গাড়ির গ্যারেজ ভাঙচুর করে। এ সময় বাড়ির লোকজনের চিৎকারে এলাকাবাসী এগিয়ে এলে তারা পালিয়ে যায়। যা আমার বাড়ির সিসিটিভি ফুটেজে ধারণ করা রয়েছে।

পিরোজপুর সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ নুরুল ইসলাম বাদল জানান, এ ঘটনায় রাতেই মামলা হয়েছে। প্রধান আসামি জাকারিয়া ও তার দুই সহযোগীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।



সাতদিনের সেরা