kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৮ বৈশাখ ১৪২৮। ১১ মে ২০২১। ২৮ রমজান ১৪৪২

শেখ হাসিনার ওপর আল্লাহর রহমত আছে : শামীম ওসমান

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি   

১৩ এপ্রিল, ২০২১ ২০:২৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



শেখ হাসিনার ওপর আল্লাহর রহমত আছে : শামীম ওসমান

ফাইল ছবি

নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের এমপি শামীম ওসমান বলেছেন, দেশকে অস্থিতিশীল করতে চূড়ান্ত ষড়যন্ত্র চলছে। আমি তো গত ৭-৮ মাস ধরেই বলে আসছিলাম। দেশকে ধ্বংসের জন্য নানা কূটকৌশল করা হচ্ছে। কিন্তু আল্লাহর রহমত আছে আমাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ওপর। তিনি থাকতে আল্লাহর ইচ্ছায় সব ধরণের ষড়যন্ত্রকে মোকাবেল করার শক্তি আল্লাহ তাঁকে দিয়েছেন। তাই চিন্তা করবেন না। যে পর্যন্ত শেখ হাসিনা আছেন সেই পর্যন্ত দেশের মানুষের জন্য উন্নয়ন কাজ অব্যাহত রেখে চ্যালেঞ্জ নিয়ে এগিয়ে যাচ্ছেন, আগামীতেও যাবেন। আজ মঙ্গলবার দুপুর ২টায় নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার আলোচিত ইউএনও নাহিদা বারিকের বিদায় অনুষ্ঠানে তিনি এ সব কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, মানুষের কিসের এতো বাহাদুরি। চারদিকে কত কম বয়সী মানুষ মারা যাচ্ছে। এই যে কথা বলছি এখন যদি আল্লাহর হুকুম হয় তাহলে চলে যেতে হবে। তাই কিসের এত অহংকার। আসুন মানুষের জন্য ভালো কাজ করি। ভালো কাজ মানুষকে আমরণ বাঁচিয়ে রাখে।

অনুষ্ঠান শেষে দুপুর আড়াইটায় নারায়ণগঞ্জ খানপুর হাসপাতালে করোনার টিকা দ্বিতীয় ডোজগ্রহণ করেন এমপি শামীম ওসমান। টিকাগ্রহণ শেষে সংক্ষিপ্ত প্রেস ব্রিফিংয়ে তিনি বলেন, করোনা নিয়ে সরকার কি করবে? বিদেশী রাষ্ট্র কি করবে? তা না ভেবে আমি কি করব তা ভাবি। করোনার প্রটেকশনের জন্য আসলে আমি কি করব। দয়া করে স্বাস্থ্যবিধিটা মেনে চলুন। নিজে মেনে চলুন। আপনার পাশের লোকটাকেও সচেতন করুন। এছাড়া আমরা কিন্তু চরম হুমকির মুখে আছি।

লকডাউন প্রসেঙ্গ তিনি বলেন, সরকারের একার চেষ্টা কোনো কিছু সম্ভব না। হাজার লকডাউন ও কারফিউ দিয়ে লাভ নেই  আমি যদি নিজে ঠিক না হই। হাদীসে যেভাবে মহামারি থেকে বাঁচতে বলা হয়েছে সেভাবে চলুন। আপনি পুলিশ দেখে মাস্ক পড়বেন। আবার চলে গেলে খুলে ফেলবনে। তাহলে কিভাবে হবে। সবাইকে সচেতন হতে হবে। আপনার কারোনা হলে আপনি বেঁচে গেলেন। কিন্তু  আপনার মাধ্যমে আপনার  বাবা ও ভাই কেউ মরে গেলে এই দায়িত্ব কার বলুন?

সদর উপজেলা ইউএনও নাহিদা বারিকের বিদায় অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন- উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান নাজিমউদ্দিন, উপজেলা চেয়ারম্যান আজাদ বিশ্বাস ও বক্তাবলী ইউনিয় পরিষদের চেয়ারম্যান শওকত আলী, এনায়েতনগর ইউননিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. আসাদুজ্জামান প্রমুখ।



সাতদিনের সেরা