kalerkantho

বুধবার । ৮ বৈশাখ ১৪২৮। ২১ এপ্রিল ২০২১। ৮ রমজান ১৪৪২

আগুনে পুড়ল আশ্রয়ণ প্রকল্পের ১০ ঘর, ৪০ লাখ টাকার ক্ষতি

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি   

৮ এপ্রিল, ২০২১ ০৫:০৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



আগুনে পুড়ল আশ্রয়ণ প্রকল্পের ১০ ঘর, ৪০ লাখ টাকার ক্ষতি

হবিগঞ্জের চুনারুঘাট উপজেলার পানছড়ি আশ্রয়ণ প্রকল্পে বৈদ্যুতিক শট সার্কিট থেকে আগুন লেগে ১০টি ঘর পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। প্রায় দেড় ঘণ্টার আগুনে ১০টি পরিবার সর্বস্বান্ত হয়ে গেছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, আগুনে ৪০ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। তবে স্থানীয়রা বলছেন, আরো অনেক বেশি ক্ষতি হয়েছে। বুধবার (৭ এপ্রিল) রাতে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। 

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, বুধবার রাত ৮টায় চুনারুঘাট উপজেলার শানখলা ইউনিয়নের পানছড়ি আশ্রয়ণ প্রকল্পের একটি ঘরে বৈদ্যুতিক শট সার্কিট থেকে আগুন লাগে। এরপর আগুন ছড়িয়ে গিয়ে আরো ১০টি ঘর পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। খবর পেয়ে শায়েস্তা ফায়ার সার্ভিসের একটি ইউনিট ঘটনাস্থলে গিয়ে প্রায় দেড় ঘণ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণ করে।

আগুনে আশ্রয়ণ প্রকল্পের একটি ব্যারাকে শাহনূর ফকির, সালেহা বেগম, সনজু মিয়া, ফাতেমা বেগম, সেলিম মিয়া, আব্দুস শহিদ, আব্দুর রহিম, মালেকা বেগম, মরম আলীসহ ১০ জনের ঘর ছিল। আগুনে তাদের ঘরে থাকা তিনটি ছাগল, পাঁচটি ফ্রিজ, টেলিভিশন, নগদ অর্থসহ সব ধরনের মালামাল পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। 

প্রত্যক্ষদর্শী ও হবিগঞ্জ আদালতের মোহরার সারাজ মিয়া জানান, আগুনে ১০টি পরিবারে থাকা সব কিছু পুড়ে গেছে। তারা এখন সর্বস্বান্ত। মরম আলী নামে এক ব্যক্তির বিদেশে থাকা দুই মেয়ে এক দিন আগে জমি ক্রয়ের জন্য দুই লাখ টাকা পাঠিয়েছিলেন। টাকাগুলো ব্যাংক থেকে এনে ঘরে রাখার পর আগুনে তার এ টাকাও পুড়ে গেছে। ঘটনার পর মরম আলী ও তার স্ত্রী বারবার মূর্ছা যাচ্ছিলেন। 

স্থানীয় মেম্বার গৃহহীন হয়ে পড়াদেরকে উদ্ধার করে আশ্রয়ণ প্রকল্পের অন্য খালি ঘরে স্থানান্তর করেছেন এবং স্থানীয়ভাবে রান্না করে তাদের খাবারের ব্যবস্থা করেছেন। খবর পেয়ে চুনারুঘাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সত্যজিৎ রায় দাশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

তিনি জানান, বৈদ্যুতিক শট সার্কিট থেকে আগুন লেগে আশ্রয়ণ প্রকল্পের ১০টি ঘর পুড়ে গেছে। ঘরগুলো পুরোপুরিভাবেই ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। তবে এখনো ক্ষয়ক্ষতির প্রকৃত পরিমাণ জানা যায়নি। এ নিয়ে প্রশাসন কাজ করছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা