kalerkantho

রবিবার। ৫ বৈশাখ ১৪২৮। ১৮ এপ্রিল ২০২১। ৫ রমজান ১৪৪২

সিলেটে হেফাজত-আওয়ামী লীগ সংঘর্ষ, ৫ শিবিরকর্মী আটক

সিলেট অফিস   

২৮ মার্চ, ২০২১ ১৬:০৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সিলেটে হেফাজত-আওয়ামী লীগ সংঘর্ষ, ৫ শিবিরকর্মী আটক

দেশব্যাপী হরতাল চলাকালে সিলেট নগরের কোর্ট পয়েন্ট এলাকায় হেফাজতে ইসলাম এবং আওয়ামী লীগের মধ্যে পাল্টাপাল্টি ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। পরে সংঘর্ষে শ্রমিকারও জড়ান। এ সময় ইটপাটকেল নিক্ষেপ ও ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। সংঘর্ষের সময় দুই ছাত্রলীগকর্মীসহ অন্তত পাঁচজন আহত হন এবং পাঁচজনকে আটক করে পুলিশ। আজ রবিবার বেলা ১টার দিকে এ সংর্ঘের ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগসহ দলটির অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীরা নগরের চৌহাট্টায় শহীদ মিনারের সামনে থেকে মিছিল নিয়ে কোর্ট পয়েন্টে এসে সভায় মিলিত হন। সভা চলাকালে ছাত্রলীগের কিছু নেতাকর্মী পার্শ্ববর্তী বন্দরবাজার করিম উল্লাহ মার্কেটের সামনে অবস্থান নেন। সেখানে হেফাজতের কয়েকজন পিকেটার দেখে ধাওয়া করলে তারা পালিয়ে যায়। কিছুক্ষণ পরে হেফাজতকর্মীরা সংঘটিত হয়ে এসে ছাত্রলীগকে ধাওয়া করে।

পরে আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীরা সংগঠিত হয়ে হেফাজতের নেতাকর্মীদের ধাওয়া দেন। এর পর বেশ কয়েকবার তাদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টাধাওয়ার ঘটনা ঘটে। এ সময় ছাত্রলীগের হামলায় এক শ্রমিকও আহত হন বলে অভিযোগ শ্রমিকদের। এতে ক্ষুব্ধ শ্রমিকরা জড়ো হয়ে ছাত্রলীগকে ধাওয়া করলে সংঘর্ষ ত্রিমুখী রূপ নেয়।

একপর্যায়ে হেফাজত ও শ্রমিকরা মিলে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের ধাওয়া করে কামরান চত্বর  পর্যন্ত নিয়ে যান। এ সময় ছাত্রলীগ পাল্টা জবাব দিতে অন্তত ১৫টি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটায়। সংঘর্ষে ছাত্রলীগের দুজনসহ অন্তত পাঁচজন আহত হয়েছেন। পুলিশ এ সময় পাঁচজনকে আটক করেছে। পুলিশের দাবি, আটককৃতরা ছাত্রশিবিরের নেতাকর্মী।

সিলেট কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এস এম আবু ফরহাদ বলেন, বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে। সংঘর্ষের সময় পাঁচজনকে আটক করা হয়েছে। তারা সবাই ছাত্রশিবিরের রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা