kalerkantho

বুধবার । ৮ বৈশাখ ১৪২৮। ২১ এপ্রিল ২০২১। ৮ রমজান ১৪৪২

বস্তা থেকে দুর্গন্ধ, খুলতেই মিলল তরুণীর দেহ

মেহেরপুর প্রতিনিধি   

২৬ মার্চ, ২০২১ ১৫:২৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বস্তা থেকে দুর্গন্ধ, খুলতেই মিলল তরুণীর দেহ

প্রতীকী ছবি

মেহেরপুর সদর উপজেলার কুলবাড়িয়া সংলগ্ন ভৈরব নদ থেকে এক তরুণীর বস্তাবন্দি অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল বৃহস্পতিবার রাত ৯টার দিকে কুলবাড়িয়া হামেশাতলা থেকে অজ্ঞাত লাশটি উদ্ধার করা হয়।

অর্ধগলিত লাশটি ১৮ থেকে ১৯ বছরের এক তরুণীর ধারণা পুলিশের। মৃত দেহে নিজের ওড়না দিয়ে ফাঁস লাগানো ছিলো। ৪-৫ দিন আগে তাকে শ্বাসরোধে হত্যা করে কে বা কারা লাশটি ফেলে গেছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছে পুলিশ। এ সংবাদ লেখা পর্যন্ত তার পরিচয় পাওয়া যায়নি। 

পুলিশ জানায়, উদ্ধারের পর লাশ মেহেরপুর মর্গে রাখা হয়েছে। শনাক্ত না হলে ময়নাতদন্ত শেষে বেওয়ারিশ হিসেবে দাফন করা হবে।

বৈকুন্ঠপুর পুলিশ ক্যাম্প ইনচার্জ মাসুদ রানা জানান, স্থানীয় কয়েকজন সন্ধ্যার দিকে গোসল করতে গিয়ে একটি প্লাস্টিকের বস্তা দেখতে পায়। বস্তা থেকে দুর্গন্ধ বের হওয়ায় সদর থানায় খবর দেয়। সদর থানা আমাকে জানালে আমি কুলবাড়িয়া ভৈরব নদে গিয়ে স্থানীয়দের সহযোগিতায় বস্তাটি উদ্ধার করে নদী পাড়ে নিয়ে আসি। বস্তা খুলে অর্ধগলিত লাশ দেখতে পেয়ে উর্ধতন কর্মকর্তাকে জানানো হয়। 

মেহেরপুর সদর থানার ওসি শাহ দারা খান জানান, ভৈরব নদে যেহেতু স্রোত নেই সেহেতু ধারণা করা হচ্ছে কে বা কারা লাশটি এখানে ফেলে গেছে। তবে মৃতের গলায় কালো কাপড় দিয়ে বাঁধা ছিল। হয়তো হত্যা করার পর লাশটিকে বস্তায় ভরা হয়ে থাকতে পারে। ময়নাতদন্তের পর বিষয়টি আমরা নিশ্চত হতে পারবো।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা