kalerkantho

বুধবার । ১ বৈশাখ ১৪২৮। ১৪ এপ্রিল ২০২১। ১ রমজান ১৪৪২

শ্রমিক বিরোধ : সিরাজগঞ্জে দ্বিতীয় দিনের মতো বাস চলাচল বন্ধ

সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি   

৩ মার্চ, ২০২১ ১৭:২৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



শ্রমিক বিরোধ : সিরাজগঞ্জে দ্বিতীয় দিনের মতো বাস চলাচল বন্ধ

শ্রমিকদের মধ্যে বিরোধের জের ধরে সিরাজগঞ্জের সব রুটে বাস-সিএনজিচালিত অটোরিকশা চলাচল অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ রয়েছে। সিরাজগঞ্জ শহর থেকে বুধবার সকালে কোনো রুটে বাস ছেড়ে যায়নি এবং কোনো বাস শহরে প্রবেশ করতে দেখা যায়নি। একইভাবে কোনো রুটে সিএনজিচালিত অটোরিকশাও সকল থেকে দুপুর পর্যন্ত চলাচল করেনি।

এর আগে, মঙ্গলবার দিনভর দফায় দফায় বাস ও অটোরিকশা চলাচল বন্ধ থাকে। বিভিন্ন স্থানে গাড়ি ভাঙচুর ও বাজার স্টেশন এলাকায় সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

সিরাজগঞ্জ সিএনজি-অটোরিকশা মালিক গ্রুপের সাধারণ সম্পাদক ফেরদৌস হাসান বলেন, এনায়েতপুর রুটে সিএনজি চালকের সঙ্গে বাস চালকের ঝামেলা হয়। এরপর বাস শ্রমিকরা প্রথমে মিরপুর ও পরে বাজার স্টেশনে কয়েকটি সিএনজি ভাঙচুর করে। পরে বাজার স্টেশনে উভয়পক্ষের সংঘর্ষ হয়। এ কারণে চালকরা সিএনজি চলাচল বন্ধ করে দিয়েছে। তবে এ বিষয়ে সাংগঠনিক কোনো ঘোষণা দেয়া হয়নি।

জেলা মোটর শ্রমিক ইউনিয়নের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক রাজা বলেন, মঙ্গলবার সকালে শহরের মিরপুর কালাচান মোড়ে একটি সিএনজি যাত্রী নিয়ে এনায়েতপুরের দিকে যাচ্ছিল। বিপরীত দিক থেকে আসা একটি বাসকে সাইড দেওয়া নিয়ে উভয় চালকের তর্কাতর্কির এক পর্যায়ে বাস চালক সিএনজি চালককে চড় মারে। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে সিএনজি চালক রেলগেট এলাকায় তাদের স্ট্যান্ডে গিয়ে শ্রমিকদের সঙ্গে নিয়ে ওই বাসের ওপর হামলা ও ভাঙচুর চালায়। এ সময় তারা বাসের একজন শ্রমিককে এন্টিকার্টার মেরে আহত করে। খবর পেয়ে আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখি এক দেড় শ সিএনজি শ্রমিক সড়ক অবরোধ করে বাস চলাচল বন্ধ করে দিয়েছে। এরপর থেকে তারা চন্ডিদাসগাঁতী, শিয়ালকোল, রেলগেট এলাকায় ৬-৭টি বাস ভাঙচুর করেছে। এ কারণে ভয়ে বাস চলাচল বন্ধ করে দিয়েছে শ্রমিকরা।

সিরাজগঞ্জ অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট তোফাজ্জল হোসেন বলেন, বিষয়টি মীমাংসার জন্য আমাদের কাছে শ্রমিক নেতারা এসেছিলেন। আমরা বিষয়টি পুলিশকে ট্যাগ করে দিয়েছি। পুলিশের মধ্যস্থতায় সমাধান হয়ে যাবে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা