kalerkantho

মঙ্গলবার । ৭ বৈশাখ ১৪২৮। ২০ এপ্রিল ২০২১। ৭ রমজান ১৪৪২

প্রেম, বিয়ে, তালাক, অতঃপর রহস্যজনক লাশ!

আঞ্চলিক প্রতিনিধি, রংপুর   

২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ১৩:৪২ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



প্রেম, বিয়ে, তালাক, অতঃপর রহস্যজনক লাশ!

রংপুরের বদরগঞ্জে নিখোঁজের পর ভুট্টাক্ষেত থেকে রুপা মনি নামে এক মাদরাসা ছাত্রীর লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। আজ শনিবার সকালে উপজেলার কুতুবপুর ইউনিয়নের নাটারাম উত্তরপাড়ায় এ ঘটনা ঘটে। রুপা মনি ওই এলাকার রফিকুল ইসলামের মেয়ে। এলাকাবাসীর ধারণা, বাড়ি থেকে পালিয়ে বিয়ে করার অপরাধে তাকে হত্যার পর লাশ ভুট্টাক্ষেতে ফেলে রাখা হয়।

স্থানীয়রা জানায়, এক মাস আগে রুপা নীলফামারী জেলার কিশোরগঞ্জ উপজেলার এক ছেলের সঙ্গে পালিয়ে বিয়ে করে। এ নিয়ে থানায় মামলা করেন রুপার বাবা রফিকুল ইসলাম। পরে বিয়ে মেনে নেওয়ার কথা বলে কৌশলে রুপা ও তার স্বামীকে বাড়িতে ডেকে আনে রুপার পরিবার। এক পর্যায়ে ছেলেটিকে পিটিয়ে তালাক নামায় স্বাক্ষর করতে বাধ্য করে। পরে তাকে তাড়িয়ে দেওয়া হয়। এ নিয়ে রুপার সঙ্গে তার বাবার সম্পর্ক খারাপ যাচ্ছিল। এলাকাবাসীর ধারণা, এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে রুপাকে হত্যা করে লাশ ভুট্টা ক্ষেতে ফেলে রাখা হয়।

বদরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হাবিবুর রহমান বলেন, নিহতের স্বজনদের জিজ্ঞাসা করে ঘটনার রহস্য উদঘাটন করার চেষ্টা চলছে। মরদেহ উদ্ধার করে রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হবে বলে জানান তিনি।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা