kalerkantho

শনিবার । ২৭ চৈত্র ১৪২৭। ১০ এপ্রিল ২০২১। ২৬ শাবান ১৪৪২

স্বাক্ষর জাল করে ৪২ লাখ টাকা নিয়ে পিয়ন উধাও

সরিষাবাড়ী (জামালুর) প্রতিনিধি   

২৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ১৮:৪১ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



স্বাক্ষর জাল করে ৪২ লাখ টাকা নিয়ে পিয়ন উধাও

সাকিবুল হাসান

জামালপুরের সরিষাবাড়ী উপজেলা হিসাব রক্ষণ অফিসারের স্বাক্ষর জাল করে প্রায় ৪২ লাখ টাকা ব্যাংক থেকে উত্তোলনের অভিযোগ উঠেছে অফিস পিয়ন সাকিবুল হাসানের বিরুদ্ধে। ঘটনার পর থেকেই ওই পিয়ন লাপাত্তা। এ ঘটনায় থানায় পৃথক দুটি সাধারণ ডায়েরি করা হয়েছে।

উপজেলা হিসাব রক্ষণ অফিস সূত্রে জানা যায়, গত তিন বছর আগে অফিস পিয়ন জয়নাল আবেদীন অসুস্থ হয়ে পড়েন। জয়নালের পরিবর্তে তার ছেলে সাকিবুল হাসানকে কাজ করার অনুমতি দেওয়া হয়। কাজ করার সুবাদে অফিসের সকল গোপনীয় কাগজপত্রসহ অফিসিয়াল টাকা লেনদেনের পিন কোড জেনে ফেলেন সাকিবুল। এর পাশাপাশি অফিসের সকল কর্মকর্তা কর্মচারির বিশ্বস্ত হয়ে উঠেন তিনি। এই সুযোগ নিয়ে চার দফায় গত তিন বছরে অফিসের অডিটর অফিসার রফিকুল ইসলাম, এস এ এস সুপারিনটেনডেন্ট ও হিসাব রক্ষণ অফিসার স্নিগ্ধ রায়হানের স্বাক্ষর জাল করে উপজেলা কমপ্লেক্স সোনালী ব্যাংক থেকে জামানত ফান্ডের ৪১ লাখ ৯৪ হাজার ৫১২ টাকা উত্তোলন করে অফিস পিয়ন সাকিবুল হাসান।

গত ১৬ ফেব্রুয়ারি টাকা উত্তোলনের ভাউচার তলব করে হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তা স্নিগ্ধ রায়হান। এ সময় দেখতে পান টাকা উত্তোলিত ভাউচারে স্বাক্ষরগুলো তার নয়। এরপর খোঁজ নিয়ে জানতে পারে কর্মকর্তাদের স্বাক্ষর জাল করে ব্যাংক থেকে পর্যায়ক্রমে ৪১ লাখ ৯৪ হাজার ৫১২ টাকা উত্তোলন করা হয়েছে। এ সময় পিয়ন সাকিবুল হাসান কৌশলে পালিয়ে যায়।

উপজেলা হিসাব রক্ষণ কর্মকর্তা স্নিগ্ধ রায়হান কালের কণ্ঠকে জানান, গত ১৬ ফেব্রুয়ারি কাগজপত্র খোঁজ নিয়ে জানতে পারি চার দফায় অফিসারদের স্বাক্ষর জাল ৪১ লাখ ৯৪ হাজার ৫১২ টাকা উত্তোলন করে নিয়েছে অফিস পিয়ন সাকিবুল হাসান। বিষয়টি উপরে মহলের কর্মকর্তাদের জানানো হয়েছে। তাদের নিদের্শ অনুযায়ী থানায় দুটি জিডি করা হয়েছে। বিষয়টি দুর্নীতি দমন কমিশন কেউ জানানো হয়েছে। ঘটনার পর থেকেই অফিস পিয়ন পলাতক রয়েছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা