kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১৯ ফাল্গুন ১৪২৭। ৪ মার্চ ২০২১। ১৯ রজব ১৪৪২

ভাষা শহীদদের স্মরণে অভূতপূর্ব আয়োজন!

চন্দন দাস, বাঘারপাড়া (যশোর)   

২২ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ০১:৪৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ভাষা শহীদদের স্মরণে অভূতপূর্ব আয়োজন!

যশোরের বাঘারপাড়া উপজেলার রাস্তায় দৃষ্টিনন্দন সাজে চলছে ঘোড়ার গাড়ি। একটা নয়, দুটো নয়- লাইন মোটেও শেষ হচ্ছে না। ঘোড়ার গাড়িতে বসে আছেন বয়স্ক থেকে শুরু করে শিশুরা। দুলকিচালে চলছে গাড়ি; সওয়ারীদের হাতে হাতে লাল-সবুজের পতাকা। আরোহীদের কণ্ঠে শোনা যাচ্ছে একুশে ফেব্রুয়ারির অমর গান।

অভূতপূর্ব এ দৃশ্য দেখা গেছে রবিবার (২১ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে। ঘোড়ার গাড়ির দীর্ঘ এই সারি দেখতে রাস্তার দুই পাশে ভিড় জমায় উৎসুক মানুষ। তাদের চোখে মুখে ফুটে ওঠে বিস্ময়!

বিভিন্ন রঙের কাগজ দিয়ে সাজানো ঘোড়ার গাড়িগুলো। সবাই সুরে সুরে গাইছেন, ‘আমার ভাইয়ের রক্তে রাঙানো একুশে ফেব্রুয়ারি, আমি কি ভুলিতে পারি...’।

যশোরের বাঘারপাড়ায় ভাষা শহীদদের স্মরণে প্রায় অর্ধশত ঘোড়ার গাড়ি নিয়ে ব্যতিক্রম এ শোভাযাত্রার আয়োজন করে নারিকেলবাড়িয়া ইউনিয়নের ইউপি সদস্য ও স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা রবিউল ইসলাম।

রবিবার (২১ ফেব্রুয়ারি) তিনি প্রায় অর্ধশত ঘোড়ার গাড়ি নিয়ে অভূতপূর্ব এই শোভাযাত্রা বের করেন। এতে অংশ নেয় তার নিজ ওয়ার্ডসহ ইউনিয়নের শতাধিক মানুষ। শোভাযাত্রাটি বিভিন্ন ইউনিয়নসহ বাঘারপাড়া পৌর এলাকা প্রদক্ষিণ করে। এ সময় শত শত উৎসুক মানুষ রাস্তার দুই পাশে দাঁড়িয়ে ব্যতিক্রমী এ আয়োজন দেখতে ভিড় জমায়।

আয়োজক ইউপি সদস্য রবিউল ইসলাম জানান, বেলা পৌনে ১২টায় শোভাযাত্রাটি শুরু হয় নারিকেলবাড়িয়া ইউনিয়নের মালঞ্চি গ্রাম থেকে। এরপর নারিকেলবাড়িয়া ইউনিয়নের অন্তারামপুর, পুনিহার মোড় ও ধুপখালি, রায়পুর ইউনিয়নের শেখেরবাতান ও রামকান্তপুর, দরাজহাট ইউনিয়নের কড়াইতলা, পৌর এলাকার চৌরাস্তা মোড়, দোহাকুলা বাজার হয়ে দোহাকুলা ইউনিয়নের তালবাড়িয়া, গলগলিয়া, চেঁচুয়াখোলা ও ঠাকুরকাঠি হয়ে কয়ার বটতলা ‘ইকোপার্কে’ এসে শেষ হয়। সেখানে দুপুরের খাবার খেয়ে বাড়ি ফেরেন তারা।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা