kalerkantho

রবিবার । ১৫ ফাল্গুন ১৪২৭। ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১। ১৫ রজব ১৪৪২

যৌতুকের জন্য স্ত্রীর চুল কেটে দিলেন পাষণ্ড স্বামী

ধামরাই (ঢাকা) প্রতিনিধি   

১১ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ০১:৪৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



যৌতুকের জন্য স্ত্রীর চুল কেটে দিলেন পাষণ্ড স্বামী

ঢাকার ধামরাইয়ে যৌতুক লোভী এক পাষণ্ড স্বামী তার স্ত্রীর মাথার চুল কেটে ও কাচি দিয়ে শরীরের বিভিন্ন অংশে রক্তাক্ত জখম করে বাড়ি থেকে বের করে দিয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। আহতাবস্থায় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে স্ত্রী বিমলাকে। এ ঘটনায় স্বামীর বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দিয়েছে স্ত্রী বিমলা। বিমলার স্বামী ইমরান হোসেন পৌরসভার গোয়ারীপাড়া মহল্লার শওকত আলীর ছেলে।

আহত বিমলা বেগম ও স্বজনদের কাছ থেকে জানা গেছে, প্রায় ১৭ বছর আগে একই মহল্লার ওবাইদুল ইসলামের মেয়ে বিমলাকে বিয়ে করেন ইমরান হোসেন। এর মধ্যে তাদের সংসারে এক ছেলে ও এক মেয়ে রয়েছে। বিয়ের কয়েক বছর পর থেকে বিভিন্ন সময়ে ইমরান তার স্ত্রী ও শ্বশুরের কাছে যৌতুক দাবি করে আসছিলেন। এ নিয়ে প্রায়ই তাদের মধ্যে কলহ লেগেই থাকত। মাঝে মধ্যে বিমলাকে মারপিট করত। বাপের বাড়ি পাঠিয়ে দিত। কিছু টাকা দিলেই চুপচাপ থাকত ইমরান। এভাবে প্রায় এক লাখ টাকা যৌতুক হিসেবে দিয়েছে ইমরানকে।

এদিকে সংসারের সুখের জন্য বিমলা স্থানীয় স্নোটেক্স পোশাক কারখানায় চাকরি নেন। প্রতিমাসের বেতনের সব টাকাই ইমরান নিয়ে নিত বিমলার কাছ থেকে। গত চার দিন আগে মহল্লার একটি দোকান থেকে কিছু টাকার জিনিসপত্র বাকি নেয় বিমলা। এ নিয়ে তাকে মারপিট করে সারা রাত ঘরের বাইরে বসিয়ে রাখে। এক পর্যায়ে মাথার চুল কেটে দেয়। কাচি দিয়ে পিঠে রক্তাক্ত জখম করে। এ অবস্থায় গতকাল বুধবার রাতে বিমলাকে বাড়ি থেকে বের করে দেয় পাষণ্ড স্বামী ইমরান। পরে তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে তার স্বজনরা। এ ঘটনায় স্বামীর বিরুদ্ধে ধামরাই থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছে বিমলা বেগম। 

এ বিষয়ে ধামরাই থানার অফিসার ইনচার্জ আতিকুর রহমান বলেন, অভিযোগ পেয়েছি। আসামি ধরতে পুলিশ পাঠানো হয়েছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা