kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১২ ফাল্গুন ১৪২৭। ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১। ১২ রজব ১৪৪২

কমলগঞ্জে বাড়ছে শীতের তীব্রতা, ঠাণ্ডাজনিত রোগে আক্রান্ত শিশুরা

কমলগঞ্জ (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি   

২৪ জানুয়ারি, ২০২১ ২২:১৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



কমলগঞ্জে বাড়ছে শীতের তীব্রতা, ঠাণ্ডাজনিত রোগে আক্রান্ত শিশুরা

মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে তীব্র শীতের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে শীতজনিত রোগের প্রকোপ। বিশেষ করে শিশুরা আক্রান্ত হচ্ছে ডায়রিয়া, নিউমোনিয়াসহ ঠান্ডাজনিত নানারোগ। গত তিন দিনে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে বেড়েছে রোগীর সংখ্যা। গত তিন দিনে ঠান্ডাজনিত রোগে আক্রান্ত হয়ে প্রায় ৪০ জন রোগী হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। শুধু সরকারি হাসপাতাল নয় বেসরকারি ও প্রাইভেট চিকিৎসকদের কাছে শিশুরা চিকিৎসা নিচ্ছেন। অনেকেই করোনার ভয়ে হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছে না। অপরদিকে কনকনে হিমেল বাতাস ও শীতের তীব্রতায় উপজেলায় সাধারণ মানুষের ভোগান্তিতে পড়েছেন। শীতের কারণে সকল প্রকার কাজ-কর্মে ব্যাঘাত ঘটছে।

মাঘের শুরুতেই শীতের প্রকোপ বাড়তে শুরু করেছে। দিনের বেলা সূর্যের তাপে তেমন শীত অনুভূত না হলেও সন্ধ্যা নামার সাথে সাথেই ঠান্ডার সাথে নেমে আসে কুয়াশার তীব্রতা। রাত যতই গভীর হয় ঠান্ডার প্রকোপ ততই বাড়তে থাকে। এ অবস্থা চলে পরের দিন সূর্যোদয় পর্যন্ত। সকাল ও রাতের বেলা খড়কুটা জ্বালিয়ে অনেকে শীত নিবারনের চেষ্টা করছেন। ঘন কুয়াশার দিনের বেলায়ও যানবাহন হেডলাইট জ্বালিয়ে চলাচল করতে দেখা গেছে। টানা কয়েকদিনের শীতের তীব্রতায় মধ্য ও নিম্নবৃত্তের মানুষ গরম কাপড়ের দোকানে ভিড় করছেন। এ অবস্থায় রাতে গরম কাপড়ের অভাবে শীত কষ্টে ভুগছেন ছিন্নমূল মানুষেরা।

কমলগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা এম মাহবুবুল আলম ভুঁইয়া বলেন, ঠান্ডাজনিত কারণে সর্দি, জ্বর, কাশি রোগ দেখা দেওয়া হাসপাতালে রোগীর সংখ্যা বৃদ্ধি বেড়েছে। তাদের মধ্যে শিশু ও বয়স্কদের সংখ্যাই বেশী। তবে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের মধ্যে রয়েছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা