kalerkantho

রবিবার। ৫ বৈশাখ ১৪২৮। ১৮ এপ্রিল ২০২১। ৫ রমজান ১৪৪২

জগন্নাথপুর পৌর নির্বাচন

'একটা ভোট নষ্ট করে লাভ নাই, তাই কষ্ট করে চলে আসলাম'

জগন্নাথপুর (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধি   

১৬ জানুয়ারি, ২০২১ ১১:১৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



'একটা ভোট নষ্ট করে লাভ নাই, তাই কষ্ট করে চলে আসলাম'

ছোট ভাইয়ের কোলে চড়ে ভোট দিতে আসেন অসুস্থ বৃদ্ধ ছনর মিয়া। ছবি: কালের কণ্ঠ

সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুর পৌরসভার নির্বাচনের ভোটগ্রহণ চলছে। শনিবার (১৬ জানুয়ারি) প্রথমবারের মতো এই পৌরসভায় ইভিএম পদ্ধতিতে সকাল আট থেকে ভোট গ্রহণ শুরু হয়। একটানা বিকেল ৪টা পর্যন্ত চলবে।

শহরের ইকড়ছই আলিয়া মাদ্রাসার ভোট কেন্দ্র সকাল ৯টার দিকে সরেজমিন পরিদর্শনকালে দেখা যায়, পৌর এলাকার হবিবনগরের বাসিন্দা অসুস্থ ছনর মিয়াকে (৬০) তার ছোট ভাই মাসুম আলী কোলে করে ভোট কেন্দ্রে নিয়ে আসছেন। পরে দ্বিতীয় তলায় একটি বুথে নিয়ে যাওয়া হয়। পরে তাকে গোপন কক্ষে নিয়ে গিয়ে একটি চেয়ারে বসিয়ে নির্বাচনী দায়িত্বরত কর্মকর্তার সহযোগিতায় তিনি ইভিএমে ভোট দেন।

ভোট প্রদানের পর ছনর আলী বলেন, 'একটা ভোট নষ্ট করে লাভ নাই। তাই কষ্ট করেও ভোটটা দিতে চলে আসলাম। ইভিএমে ভোট দিতে পেরে আমার ভাল লেগেছে। তিনি জানালেন প্রায় ১৫ দিন পূর্বে কাজ করতে গিয়ে পায়ে প্রচন্ড আঘাত পান।এরপর থেকে তিনি অসুস্থ হয়ে পড়েন। ব্যথা পাওয়াতে পায়ে এখন হাটতে পারেন না।

উপজেলা নির্বাচন কার্যালয় সূত্র জানায়, এ পৌরসভার ভোটার ২৮ হাজার ৬শ’৪২ জন। এরমধ্যে পুরুষ ভোটার ১৪ হাজার ৩শ ৯২ এবং নারী ভোটার ১৪ হাজার ২শ’ ৫০জন। মোট ভোট কেন্দ্র ১২টি। নির্বাচনের দায়িত্বে রয়েছেন ১০ জন ম্যাজিস্ট্রেট, প্রিজাইডিং কর্মকর্তা ১২ জন, সহকারী প্রিজাইডিং ৭৫ জন, পোলিং কর্মকর্তা ১৫০ জন। প্রতি কেন্দ্রে পুলিশের পাশাপাশি ৯ জন করে আনসার সদস্য দায়িত্বপালন করবে। এছাড়া র‌্যাব, বিজিবিসহ পুলিশের তিন প্লাটুন স্ট্রাইকিং র্ফোস রয়েছে নির্বাচনী দায়িত্বে। নির্বাচনে অপ্রীতিকর যেকোন ঘটনা এড়াতে কেন্দ্রে কেন্দ্রে আইনশৃঙ্খলা বাহীনির উপস্থিতি রয়েছে।

উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও সহকারি রিটার্নিং অফিসার মুজিবুর রহমান বলেন, শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভেট গ্রহণ চলছে।

প্রসঙ্গত, নির্বাচনে ৫ মেয়র প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী বর্তমান মেয়র মিজানুর রশীদ ভূঁইয়া (নৌকা), বিএনপির প্রার্থী পৌর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক হারুনুজ্জামান হারুন (ধানের শীষ), স্বতন্ত্র প্রার্থী সাবেক মেয়র আক্তারুজ্জামান আক্তার (চামচ), স্বতন্ত্র প্রার্থী যুক্তরাজ্য প্রবাসী আমজাদ আলী শফিক (মোবাইল) ও স্বতন্ত্র প্রার্থী বিঞ্চু রায় (জগ)। এছাড়া কাউন্সিলর পদে ৩৯ এবং ৯ জন নারী কাউন্সিলর প্রতিদ্বন্দ্বিতায় রয়েছেন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা