kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৪ ফাল্গুন ১৪২৭। ৯ মার্চ ২০২১। ২৪ রজব ১৪৪২

চাঁদা তুলে রাস্তা করল কৃষকরা, কেটে জমি বানাল প্রভাবশালীরা

মদন (নেত্রকোণা) প্রতিনিধি   

৬ জানুয়ারি, ২০২১ ১৬:৪৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



চাঁদা তুলে রাস্তা করল কৃষকরা, কেটে জমি বানাল প্রভাবশালীরা

নেত্রকোণার মদনে হাওরের ধান তোলার রাস্তা কেটে ফসলি জমি তৈরি করল কতিপয় প্রভাবশালী ব্যক্তি। এ বিষয়ে এলাকাবাসী উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তার বরাবর একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। উপজেলার কাইটাইল ইউনিয়নের হাজরাগাতী মৌজায় এ ঘটনাটি ঘটে।

অভিযোগে জানা যায়, উপজেলার হাজরাগাতি গ্রামে প্রায় এক কিলোমিটার রাস্তা দিয়ে কৃষকগণ হাওরের বোরো ধান বাড়িতে তুলতেন। রাস্তাটি সংস্কার না থাকায় ফসল তুলতে দূর্ভোগে পড়তে হয় কৃষকদের। দুর্ভোগ দূর করতে গ্রামবাসী সুমেশ চন্দ্র আদিত্যের বাড়িতে বৈঠক করেন। এতে সিদ্ধান্ত হয় এক কিলোমিটার রাস্তা সংস্কারের ব্যয় গ্রামবাসী বহন করবে। কৃষকরা দুই লাখ টাকা উত্তোলন করে ভেকু দিয়ে আট দিনে রাস্তাটি সংস্কার করে।

সংস্কারের কয়েকদিন পর সুমেশ চন্দ্র আদিত্য ও একই গ্রামের আজিজুল ষড়যন্ত্র করে গভীর রাতে ৫০০ মিটার রাস্তা কেটে ফসলি জমিতে পরিণত করে। এরপর গ্রামের কৃষকদের অভিযোগে স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতারা এবং জনপ্রতিধিগণ বৈঠকে করে। বৈঠকে ১৫ দিনের মধ্যে আভিযুক্তদেকে রাস্তা তৈরি করে দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়। কিন্ত দীর্ঘদিনেও সেই রাস্তা নির্মাণ করেননি।

এ বিষয়ে বক্তব্য নিতে সুমেশ চন্দ্র আদিত্যের বাড়িতে গেলে তাকে পাওয়া যায়নি। তবে তার স্ত্রী বলেন, এ রাস্তাটি সরকারি কোনো হালট না। এলাবাসীর সুপারিশের প্রেক্ষিতে আমার স্বামী ও পাশের বাড়ির আজিজুল তার জমি দিয়েই রাস্তাটি নিয়েছিল। কিন্তু আজিজুল না মানায় তাদের ভাইদের নিয়ে প্রথমে ভেকু দিয়ে রাস্তা ভেঙে জমি তৈরি করে ফেলে। পরে আমার ছেলেরাও রাস্তাটি ভেঙে জমি করেছে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার বুলবুল আহমেদ জানান, এ ব্যাপারে একটি লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। বিষয়টি তদন্তাধীন আছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা