kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১৪ মাঘ ১৪২৭। ২৮ জানুয়ারি ২০২১। ১৪ জমাদিউস সানি ১৪৪২

পা টেপানোর কথা বলে কক্ষে ডেকে নিয়ে...

সিরাজগঞ্জ ও উল্লাপাড়া (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি   

৪ ডিসেম্বর, ২০২০ ১৯:০৬ | পড়া যাবে ১ মিনিটে



পা টেপানোর কথা বলে কক্ষে ডেকে নিয়ে...

সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়া উপজেলার পূর্ণিমাগাতি ইউনিয়নের ফয়জুল উলুম মহিউছুনাহ কওমী মাদরাসার এক ছাত্রকে বলাৎকারের অভিযাগে শিক্ষক বেলাল হোসেনকে (২৮) আটক করা হয়েছে। সে উপজেলার বোয়ালিয়া গ্রামের মজনু মিয়ার ছেলে।

এ বিষয়ে নির্যাতিত ছাত্রের বাবা অভিযোগ করেন, তার ছেলে ওই মাদরাসার আবাসিক ছাত্র। শিক্ষক বেলাল হোসেন নানা অজুহাতে তার ছেলেকে রুমে ডেকে নিয়ে হাত পা ম্যাসেজ করাতেন। বৃহস্পতিবার রাতে ছেলেটিকে তার রুমে ডেকে নিয়ে বলাৎকার করেন। ওই রাতেই ছেলেটি মাদরাসা থেকে পালিয়ে বাড়ি গিয়ে বিষয়টি তাকে জানায়। পরের দিন শুক্রবার সকালে তিনি লোকজন নিয়ে ওই মাদরাসায় গিয়ে কর্তৃপক্ষের কাছে এ বিষয়ে অভিযোগ করেন। এ সময় মাদরাসা কর্তৃপক্ষ শিক্ষক বেলাল হোসেনকে একটি কক্ষে আটক করে রাখে।

মাদরাসার অধ্যক্ষ মুফতি জয়নুল আবেদীন জানান, অভিযুক্ত শিক্ষকের বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

উল্লাপাড়া মডেল থানার ওসি দীপক কুমার দাস জানান, শিক্ষক বেলালকে শুক্রবার দুপুরে মাদরাসা থেকে আটক করা হয়েছে। শিশুটির বাবা বাদী হয়ে তার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা