kalerkantho

রবিবার । ১০ মাঘ ১৪২৭। ২৪ জানুয়ারি ২০২১। ১০ জমাদিউস সানি ১৪৪২

সড়কে স্বামীর লাশ, স্ত্রী হাসপাতালে

পঞ্চগড় প্রতিনিধি   

৩ ডিসেম্বর, ২০২০ ১৮:২৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সড়কে স্বামীর লাশ, স্ত্রী হাসপাতালে

মোকছেদ আলী (২৫) ও মোর্শেদা খাতুন (২২) দম্পতির বিয়ে হয়েছে দুই মাস আগে। সেজেগুজে স্ত্রীকে নিয়ে মোকছেদ আলী দুপুরে পঞ্চগড়ের বোদা উপজেলার পানিডুবি এলাকায় যাচ্ছিলেন। কিন্তু পথে তাদের সাজসজ্জা বদলে যায় রক্তে। বেপরোয়া ট্রাক কেড়ে নেয় মোকছেদের প্রাণ। গুরুতর আহত অবস্থায় স্থানীয়রা মোর্শেদাকে পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। এই নবদম্পতির স্বামীটির ক্ষতবিক্ষত মরদেহ পড়ে ছিলো সড়কের উপর আর স্ত্রী হাসপাতালের বেডে অজ্ঞান অবস্থায় রয়েছেন। রক্তাক্ত স্বামীর মরদেহের পাশে স্ত্রীর নতুন জুতা জোড়াও পড়ে ছিল।

এই নবদম্পতির বাড়ি ঠাকুরগাঁও জেলার রাণীশংকৈল উপজেলার ধর্মঘর ভদ্রেশ্বরী কলোনি এলাকায়। মোকছেদ ওই এলাকার আব্দুল কুদ্দুসের ছেলে। বৃহস্পতিবার বিকেলে সড়ক দুর্ঘটনাটি ঘটেছে পঞ্চগড় সদর উপজেলার খোলাপাড়া এলাকায়।

নিহতের পরিবার ও স্থানীয়রা জানায়, দুপুর স্ত্রীকে নিয়ে মোটরসাইকেল যোগে শ্বাশুরবাড়ি যাচ্ছিলেন মোকছেদ। যাওয়ার পথে পঞ্চগড় খোলাপাড়া এলাকায় পৌঁছালে বিপরীত দিক থেকে বেপরোয়া গতিতে আসা একটি ট্রাক তাদের মোটরসাইকেলটিকে ধাক্কা দিলে দুজনেই সড়কের উপর ছিটকে পড়েন। ট্রাকটির একটি চাকা মোকছেদের উপর দিয়ে চলে যায়। ঘটনাস্থলেই মারা যান তিনি। গুরুতর আহত অবস্থায় তার স্ত্রীকে স্থানীয়রা পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাকে দিনাজপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তরের পরামর্শ দিয়ে ছাড়পত্র দিয়েছে হাসপাতালের চিকিৎসকরা। এদিকে ওই ব্যক্তির লাশ উদ্ধার করে পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করেছে পুলিশ।

পঞ্চগড় সদর থানার উপপরিদর্শক ভবেশ চন্দ্র পাল বলেন, ট্রাকচাপায় মোটরসাইকেল আরোহীর একজন নিহত হয়েছেন আরেকজন আহত হয়েছেন। আহত নারীকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তারা দুজনে স্বামী-স্ত্রী। ট্রাকটি আটক করা হয়েছে। তাদের পরিবারের লোকজন এখনো আসেনি। তারা আসলে প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা