kalerkantho

শনিবার । ৯ মাঘ ১৪২৭। ২৩ জানুয়ারি ২০২১। ৯ জমাদিউস সানি ১৪৪২

নববধূর স্নানদৃশ্যের ভিডিও ধারণ করে হুমকি

শাজাহানপুর (বগুড়া) প্রতিনিধি   

৩০ নভেম্বর, ২০২০ ১৭:২৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নববধূর স্নানদৃশ্যের ভিডিও ধারণ করে হুমকি

বগুড়ার শাজাহানপুরে গোপনে এক নববধূর (১৯) গোসলের ভিডিও করে কু-প্রস্তাব দেওয়াসহ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভিডিও ছেড়ে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় সোমবার দুপুরে ওই নববধূর মা বাদী হয়ে শাজাহানপুর থানায় অভিযোগ দায়ের করেন।

নববধূর মা জানান, তার মেয়েকে তিন মাস আগে বিয়ে দেন। বিয়ের পর থেকেই মেয়ে-জামাই তার বাড়িতেই থাকেন। মেয়ের বাবা ঢাকায় রিকশা চালান। জামাই রডমিস্ত্রির কাজে বেশির ভাগ সময় বাড়ির বাইরে থাকে। মেয়েকে নিয়ে তিনি বাড়িতে থাকেন। রবিবার দুপুরে তার মেয়ে বাড়ির ভেতর গোসলখানায় গোসল করছিল। এমতাবস্থায় প্রতিবেশী উপজেলার আড়িয়া ইউনিয়নের কাাঁটাবাড়িয়া দক্ষিণপাড়ার (পতিতপাড়া) নুরুল ইসলামের ছেলে রিপন (২৪) গোপনে গোসলখানার দরজার ফাঁক দিয়ে মেয়ের গোসলের ভিডিও করছিল। এ সময় তার মেয়ে দেখতে পেয়ে চিৎকার দিলে রিপন মেয়ের মুখ চেপে ধরে শ্লীলতাহানি করে এবং কু-প্রস্তাব দেয়। কু-প্রস্তাবে রাজি না হলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছেড়ে দেওয়ার হুমকি দেয়। একপর্যায়ে মেয়ের চিৎকারে প্রতিবেশীরা এগিয়ে এলে রিপন পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় রিপনের স্বজনেরা বিষয়টি আপস মীমাংশার জন্য চাপ দিচ্ছে।

নববধূ জানান, রিপন একজন মাদকসেবী ও বখাটে। এর আগেও প্রতিবেশী এক স্বামী-স্ত্রীর বিশেষ দৃশ্য ভিডিও করেছিল। রিপনের স্বজনেরা স্থানীয়ভাবে প্রভাবশালী হওয়ায় ওই দম্পত্তি ভয়ে আর লোকলজ্জার কারণে আইনের আশ্রয় নিতে পারেনি। এভাবে একের পর এক এ ধরনের অপকর্ম করে যাচ্ছে। ধারণ করা ভিডিও উদ্ধার করতে না পারলে আর যদি তা ফেসবুকে ছেড়ে দেওয়া হয় তাহলে আত্মহত্যা করা ছাড়া কোনো পথ থাকবে না। এ বিষয়ে অভিযুক্ত রিপনের সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করে তাকে পাওয়া যায়নি।

শাজাহানপুর থানার ওসি আজিম উদ্দীন অভিযোগ দায়েরের বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, অপরাধীকে আটক করতে পুলিশ আপ্রাণ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা