kalerkantho

সোমবার । ৩ কার্তিক ১৪২৭। ১৯ অক্টোবর ২০২০। ১ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

বিয়ে করতে বলায় প্রেমিকাকে গলা কেটে হত্যা!

নিজস্ব প্রতিবেদক, নোয়াখালী   

১ অক্টোবর, ২০২০ ২১:৩৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বিয়ে করতে বলায় প্রেমিকাকে গলা কেটে হত্যা!

নোয়াখালীর সদর উপজেলার নোয়ান্নই ইউনিয়নের চর করমুল্যা গ্রামের একটি ডোবা থেকে বস্তাবন্দি গলা কাটা তরুণীর পরিচয় মিলেছে। একই সঙ্গে ঘটনার ২৪ ঘণ্টার মধ্যে এ হত্যাকাণ্ডের রহস্য উদঘাটন হয়েছে।

এ ঘটানায় বৃহস্পতিবার বেগমগঞ্জ উপজেলার কেন্দুরবাগ এলাকা থেকে দুইজনকে আটক করেছে পুলিশ। পরে হত্যাকারীদের স্বীকারোক্তিতে হত্যার রহস্য উদঘাটন করা হয়।

নিহত শাহানা (২৫) চাঁদপুর জেলার পুরান বাজার গ্রামের শাহ আলম এর মেয়ে। গ্রেপ্তার কৃতরা হলেন- বেগমগঞ্জ উপজেলার কেন্দুরবাগ গ্রামের বাগারি বাড়ির মৃত জামাল উদ্দিনের ছেলে ইয়াছিন আরাফাত (২৬) এবং একই এলাকার চৌকিদার বাড়ির মো. আব্দুল মালেকের ছেলে মো. রাসেল (২৪)।

এ ঘটনায় পুলিশ অভিযুক্ত দুই আসামিকে বিচারিক আদালতে হাজির করলে, গ্রেপ্তারকৃত আসামিরা নোয়াখালী চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে খুনের দায় স্বীকার করে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন। পরে বিজ্ঞ আদালত তাদেরকে জেল হাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

সুধারাম মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নবীর উদ্দিন জানান, নিহত শাহানার সাথে মুঠোফোনে ইয়াছিন আরাফাতের সাথে প্রেমের সম্পর্ক হয়। প্রেমের সম্পর্কের সূত্র ধরে কয়েকবার শাহানা প্রেমিক ইয়াছিন আরাফাতের উদ্দেশ্যে চাঁদপুর থেকে নোয়াখালীতে আসে। সর্বশেষ গত ২৯ সেপ্টেম্বর নোয়াখালী আসে। এক পর্যায়ে শাহানা তাকে বিয়ে করতে ইয়াছিন আরাফাতকে চাপ দেয়। বিয়ে করার কথা নিয়ে দুই জনের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। এর জের ধরে ইয়াছিন আরাফাত ও তার সহযোগী মো. রাসেল কৌশলে শাহানাকে নোয়ান্নই ইউনিয়নের খন্দকার স-মিলের পিছনের একটি তিন তলা পরিত্যক্ত ভবনে নিয়ে হাত-পা বেঁধে গলা কেটে হত্যা করে। পরে লাশ বস্তায় ঢুকিয়ে নোয়ান্নই ইউনিয়নের চর করমুল্যা গ্রামের একটি ডোবার মধ্যে ফেলে আসে। 

তিনি আরো জানান, পুলিশ মরদেহ উদ্ধার শেষে ঘটনার ২৪ ঘণ্টার মধ্যে সম্পূর্ণ ক্ল্যুলেস এ হত্যাকাণ্ডের মাস্টার মাইন্ডসহ দুই আসামিকে গ্রেপ্তার করে। মোবাইল ট্র্যাকিংয়ের মাধ্যমে তাদের গ্রপ্তার করা হয়। একই সঙ্গে হত্যাকাণ্ডের রহস্য উদঘাটন করে পুলিশ।

উল্লেখ্য, এর আগে বুধবার দুপুর ১টায় পুলিশ সদর উপজেলার নোয়ান্নই ইউনিয়নের ৫নম্বর ওয়ার্ডের চর করমুল্যা গ্রামের একটি ডোবা থেকে বস্তাবন্দি অবস্থায় ওই তরুণীর গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা