kalerkantho

সোমবার । ৩ কার্তিক ১৪২৭। ১৯ অক্টোবর ২০২০। ১ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

এসআইয়ের স্ত্রীর সঙ্গে অনৈতিক সম্পর্ক, আরেক এসআই সাময়িক বরখাস্ত

আঞ্চলিক প্রতিনিধি, ময়মনসিংহ   

১ অক্টোবর, ২০২০ ১৭:৫৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



এসআইয়ের স্ত্রীর সঙ্গে অনৈতিক সম্পর্ক, আরেক এসআই সাময়িক বরখাস্ত

গোপনে এক এসআইয়ের স্ত্রীর সাথে গভীর সম্পর্ক গড়ে তোলেন আরেক এসআই। পরে বিয়ে না করায় ওই নারীর পুলিশ সুপারের কাছে অভিযোগের প্রেক্ষিতে সাময়িক বরখাস্ত ও পুলিশ লাইনসে প্রত্যাহার করে নেওয়া হয় অভিযুক্ত এসআইকে। গত বুধবার এ নির্দেশ আসে ময়মনসিংহের নান্দাইল থানায়। বৃহস্পতিবার দুপুরে তাকে পুলিশ লাইনসে পাঠানো হয়।

নান্দাইল থানায় কর্মরত ওই এসআইয়ের নাম মো. মনিরুল ইসলাম মাসুদ। তার বাড়ি নেত্রকোনার আটপাড়ায়। গত প্রায় দুই মাস আগে তিনি এ থানায় যোগ দেন।

স্থানীয় সুত্র জানায়, ময়মনসিংহের আদালতে কর্মরত থাকা অবস্থায় মনিরুল ইসলামের সাথে পরিচয় হয় ময়মনসিংহের একটি আইনি প্রতিষ্ঠানে চাকরি করা জনৈক এসআইয়ের স্ত্রীর সঙ্গে। পরিচয়ের সূত্রে মনিরুল গভীর সম্পর্ক গড়ে তোলেন। একপর্যায়ে এসআইয়ের সাথে তাঁর স্ত্রীর বনিবনা না হওয়ায় মনিরুলকে বিয়ে করার জন্য চাপ দেয়। মনিরুলের আগের স্ত্রী-সন্তান থাকায় কোনোভাবেই ওই নারীকে বিয়ে করতে চাননি তিনি। পরে ওই নারী পুলিশ সুপার বরাবর অভিযোগ দায়ের করেন। এর মধ্যে মনিরুল র‌্যাব উত্তরায় কর্মরত থেকে বদলি হয়ে ময়মনসিংহ চলে আসেন। সেখান থেকে গত প্রায় দুই মাস আগে বদলি হয়ে চলে আসেন নান্দাইল থানায় পিএসআই হিসেবে।

অন্যদিকে ওই অভিযোগের দীর্ঘ তদন্তের পর সত্যতা পেয়ে তাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়। গত বুধবার রাতে নান্দাইল থানায় আদেশ আসে তাকে (মনিরুল) ময়মনসিংহ পুলিশ লাইনসে প্রত্যাহার করার জন্য। বৃহস্পতিবার নান্দাইল থানার ওসি মনিরুলকে পুলিশ লাইনসে পাঠান।

মনিরুল সাময়িক বরখাস্তের কথা স্বীকার করে বলেন, তিনি জানেন না কেন তাকে বরখাস্ত ও প্রত্যাহার করা হয়েছে। তবে নান্দাইল থানার ওসি মো. মিজানুর রহমান আকন্দ বলেন, এটা একটা পারিবারিক বিষয়। পারিবারিক বলতে কেমন জানতে চাইলে তিনি বলেন, 'একজনের সাথে একটু কথা বলত'।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা