kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ৬ কার্তিক ১৪২৭। ২২ অক্টোবর ২০২০। ৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

শিশুপুত্রকে পিটিয়ে রক্তাক্ত জখম করল পাষণ্ড সৎ বাবা!

সীতাকুণ্ড (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি   

২৮ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ০০:৪৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



শিশুপুত্রকে পিটিয়ে রক্তাক্ত জখম করল পাষণ্ড সৎ বাবা!

চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে সাইফুল ইসলাম তামিম (৭) নামক একটি ছোট্ট শিশুকে অমানুষিক নির্যাতন করে রক্তাক্ত জখম করেছে তারই সৎ বাবা। এতে শিশুটি গুরুতর আহত হওয়ায় তাকে হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছে। এ ঘটনায় শিশুটির মা বাদী হয়ে মামলা দায়ের করলে রবিবার পুলিশ পাষণ্ড বাবাকে গ্রেপ্তার করে কোর্ট হাজতে পাঠিয়েছে।

থানায় দায়েরকৃত অভিযোগ ও থানা সূত্রে জানা গেছে, চট্টগ্রামের চন্দনাইশ থানার ছাগাচর গ্রামের মো. সুলতানের মেয়ে এক সন্তানের জননী ইয়াসমিন আক্তার (২৭) এর সঙ্গে গত চার বছর আগে তার প্রথম স্বামীর বিবাহ বিচ্ছেদ হয়। এরপর তাকে ফুসলিয়ে বিয়ে করে সীতাকুণ্ড পৌরসভার চৌধুরীপাড়া এলাকার মো. নুরুল আবচারের ছেলে সালাউদ্দিন প্রকাশ লিটন (৩৮)।

বিয়ের সময় লিটন কথা দেয় ইয়াসমিনের ছেলে তামিমকে নিজের সন্তানের মতো দেখাশুনা করবে। কিন্তু প্রকৃতপক্ষে বিয়ের পর থেকে লিটন সৎ সন্তান তামিমকে অপছন্দ করতে থাকে। তাকে পাহাড়ে চাষাবাদসহ বিভিন্ন কঠোর কাজ করায় সে এবং বিভিন্ন সময় তাকে মারধর করে আহত করে। 

সর্বশেষ গত শনিবার লিটন পাহাড়ে গিয়ে ছেলে তামিমকে পাহাড়ে নিয়ে যায়। সেখানে তাকে সবজির চাষের কাজ দেয়। ছোট্ট শিশুটির এই কাজের বিষয়ে তেমন কোনো অভিজ্ঞতা না থাকায় সে কিছু সবজি ও গাছ নষ্ট করে ফেলে। এই অজুহাতে লিটন ছোট্ট শিশু তামিমকে অমানুষিক মারধর করে পুরো শরীর রক্তাক্ত করে ফেলে। পরে শিশুটি কাঁদতে কাঁদতে ঘরে ফিরে এসে নির্যাতনের কথা মাকে জানায়।

এসময় মা তার জামা খুলে সারা শরীর রক্তাক্ত দেখে স্থানীয়দের সহায়তায় সীতাকুণ্ড হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করায়। পরে ইয়াসমিন সীতাকুণ্ড থানায় এসে দ্বিতীয় স্বামী লিটনের বিরুদ্ধে মামলা (নং ৩৭) দায়ের করলে পুলিশ রবিবার অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেপ্তার করে কোর্ট হাজতে প্রেরণ করেন।

সীতাকুণ্ড থানার ওসি (তদন্ত) সুমন বণিক ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে সৎ ছেলেকে নির্যাতনের মামলায় পাষণ্ড সৎ বাবা লিটনকে গ্রেপ্তার করে আদালতে পাঠিয়েছি আমরা।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা