kalerkantho

বুধবার । ১৫ আশ্বিন ১৪২৭ । ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০। ১২ সফর ১৪৪২

কাঠালবাড়ি-শিমুলিয়া নৌরুট

২৮ কিলোমিটার ঘুরে ৮ ঘণ্টা পর ঘাটে পৌঁছাল ফেরি!

শিবচর (মাদারীপুর) প্রতিনিধি   

১৬ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ২১:৫৫ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



২৮ কিলোমিটার ঘুরে ৮ ঘণ্টা পর ঘাটে পৌঁছাল ফেরি!

ফাইল ছবি

নাব্য সংকটের কারণে কাঠালবাড়ি-শিমুলিয়া নৌরুটে আজ সকাল থেকে একটি ফেরি চলাচল করেছে। ফেরিটি কাঁঠালবাড়ি ঘাট থেকে সকাল ৭টায় বিকল্প চ্যানেল দিয়ে রওনা দিয়ে প্রায় ২৮ কিলোমিটার পথ ঘুরে শরীয়তপুরের জাজিরার পালেরচর হয়ে বেলা ৩টার পরে শিমুলীয়া ঘাটে পৌঁছেছে। দীর্ঘ পথ পাড়ি দিতে ফেরিটির অতিরিক্ত জ্বালানী ব্যয় হয়েছে। ফেরি চলাচল অচলাবস্থার কারণে দীর্ঘদিন ধরে শতশত পন্যবাহী ট্রাক ঘাটে আটকে থেকে চালক ও শ্রমিকরা দূর্ভোগ পোহাচ্ছেন।

বিআইডব্লিউটিএ, বিআইডব্লিউটিসিসহ একাধিক সূত্রে জানা গেছে, গত ৩ সেপ্টেম্বর পদ্মা সেতুর ২৫ নম্বর পিলারের কাছে তিনটি ফেরি আটকে গেলে নাব্যতা সংকটের কারণে ফেরি সার্ভিস বন্ধ হয়ে যায়। এরআগে ২৯ আগস্ট মূল চ্যানেল লৌহজং টার্নিং চ্যানেলসহ বিআইডব্লিউটিএর সকল খননকৃত চ্যানেল বন্ধ হয়ে গেলে পদ্মা সেতুর চায়না চ্যানেল দিয়ে সীমিত আকারে পাঁচদিন ফেরি চলে। মধ্য আগস্টে বিকল্প চ্যানেলটি নাব্যতা সংকটে বন্ধ হয়ে যায়। পদ্মা সেতুর অধিগ্রহনকৃত এলাকায় ৫ আগষ্টের পর সেতু কত্তৃপক্ষের চায়না ড্রেজার স্থাপন করে ড্রেজিং শুরু করে। গত ১১ সেপ্টেম্বর দুপুরে পদ্মা সেতু ২৫ নম্বর পিলারের কাছে ড্রেজিং সম্পন্ন করে সেতু কতৃপক্ষের চায়না ড্রেজার। এরআগে মূল চ্যানেল লৌহজং টার্নিং চ্যানেল ড্রেজিং করে প্রস্তুত করে বিআইডব্লিউটিএ। ওই দিনই শিমুলিয়া ঘাট থেকে একটি রো রোসহ ৩টি ফেরি কাঁঠালবাড়ি ঘাটে পার হয়। সকল ফেরি চলাচলের উপযোগী চ্যানেল না হওয়ায় ১২ ও ১৩ সেপ্টেম্বর ৪/৫টি কেটাইপ ফেরি চলাচল করে। তবে নাব্যতা সংকট প্রকট আকার ধারন করায় ১৪ সেপ্টেম্বর সোমবার সকাল থেকে এরুটের সকল ফেরি আবারো বন্ধ করে দেয় বিআইডব্লিউটিসি।

মঙ্গলবার বিআইডব্লিউটিসির ঊর্ধ্বতন কতৃপক্ষ নৌরুট পরিদর্শন করে ২৮ কিলোমিটার ঘুরে বিকল্প চ্যানেল দিয়ে ফেরি চলাচলের সিদ্ধান্ত গ্রহন করেন। তাদের সিদ্ধান্ত মোতাবেক বুধবার সকাল ৭টায় কাঁঠালবাড়ি ঘাট থেকে যানবাহন নিয়ে রো রো ফেরি বীরশ্রেস্ট জাহাঙ্গীর বিকল্প চ্যানেল দিয়ে প্রায় ২৮ কিলোমিটার পথ ঘুরে শরীয়তপুরের জাজিরার পালেরচর হয়ে শিমুলীয়া ঘাটের উদ্দেশ্যে রওনা হয়। ২৮ কিলোমিটার পথ ঘুরে দীর্ঘ সময় ও জ্বালানী ব্যয় করে দুপুর ৩ টায় ৮ ঘণ্টারও বেশি সময় পরে ফেরিটি শিমুলীয়া ঘাটে গিয়ে পৌঁছে। এদিন আর কোন ফেরি চলাচল করেনি।

রো রো ফেরি বীরশ্রেস্ট জাহাঙ্গীর-এর মাস্টার দেলোয়ার হোসেন বলেন, প্রায় ৮ ঘণ্টা একটানা চালিয়ে শিমুলীয়া ঘাটে এসেছি। নদীতে অনেক স্রোত রয়েছে। এভাবে দীর্ঘ সময় চালানো হলে ফেরির বিভিন্ন যন্ত্রাংশে সমস্যা হতে পারে।

বিআইডব্লিউটিসি কাঁঠালবাড়ি ঘাট সহকারী ম্যানেজার মোস্তফা কামাল বলেন, বিকল্প পথ দিয়ে প্রায় ৮ ঘণ্টা পর একটি ফেরি শিমুলীয়ায় পৌঁছেছে। ফেরি অচলাবস্থার কারণে ঘাটে বেশ কিছু পন্যবাহী ট্রাক আটকে রয়েছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা