kalerkantho

শুক্রবার । ৩ আশ্বিন ১৪২৭। ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০। ২৯ মহররম ১৪৪২

দুর্নীতির অভিযোগ

কাপাসিয়া কলেজের সহকারী অধ্যাপকসহ তিনজনকে সাময়িক বরখাস্ত

আঞ্চলিক প্রতিনিধি, গাজীপুর   

১০ আগস্ট, ২০২০ ২১:৫৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



কাপাসিয়া কলেজের সহকারী অধ্যাপকসহ তিনজনকে সাময়িক বরখাস্ত

অনিয়ম-দুর্নীতি আর নানা জালিয়াতির অভিযোগে গাজীপুরের কাপাসিয়া ডিগ্রি কলেজের এক সহকারী অধ্যাপক, অফিস সহকারী ও অফিস সহায়ককে (পিয়ন) সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। কলেজ পরিচালনা পর্ষদের সিদ্ধান্তে গত ৬ আগস্ট ওই তিনজনকে সাময়িক বরখাস্তের চিঠি দেওয়া হয়। একইসঙ্গে তিনজনকে আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ দিয়ে সাত কার্যদিবসের মধ্যে জবাবদিহি করতে বলা হয়েছে।

সাময়িক বরখাস্ত হওয়া ওই তিনজন হলেন-কলেজের রসায়ন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোহা. ওয়াজিদুর রহমান খান,  অফিস সহকারী স্বপন কুমার পাল ও অফিস সহায়ক (পিয়ন) মো. ফরিদ উদ্দিন। মোহা. ওয়াজিদুর রহমান খান কলেজটির ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ ছিলেন। তাঁর বিরুদ্ধে অনিয়ম-দুর্নীতিসহ নানা জালিয়াতির অভিযোগ উঠলে গত ১৮ জানুয়ারি ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ পদ থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছিল তাঁকে।

এদিকে কলেজটির এক শিক্ষক জানায়, অফিস সহকারী স্বপন কুমার পাল এর আগেও সাময়িক বরখাস্ত হন।

জানা যায়, জালিয়াতির মাধ্যমে অর্থ আত্মসাতের অভিযোগ উঠায় তা তদন্তের জন্য উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) হস্তক্ষেপে তিন সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি হয়েছিল। তদন্তদল দুর্নীতির সত্যতা পেয়ে ইউএনও’র কাছে প্রতিবেদন জমা দেন। পরে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য কলেজ পরিচালনা পর্ষদের সভাপতির কাছে সুপারিশ করেন ইউএনও।

গাজীপুরের জেলা প্রশাসক (ডিসি) ও কলেজের পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি এস এম তরিকুল ইসলাম জানান, অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে বিভাগীয় মামলা হয়েছে। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নীতিমালা অনুসারে ওই তিনজনের দুর্নীতি অনুসন্ধানে তদন্ত কমিটি করা আছে। কমিটিতে সরকারি কলেজের একজন অধ্যক্ষসহ পাঁচজন সদস্য রয়েছেন। অভিযুক্তরা চূড়ান্তভাবে দোষী সাব্যস্ত হলে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নীতিমালা অনুযায়ী শিক্ষাবোর্ডের অনুমতি নিয়ে তাঁদের বরখাস্ত করা হবে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা