kalerkantho

শুক্রবার । ৩ আশ্বিন ১৪২৭। ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০। ২৯ মহররম ১৪৪২

কক্ষে শিশু সন্তান, পাশেই মায়ের গলাকাটা ও বাবার ঝুলন্ত লাশ

শ্রীমঙ্গল (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি   

৯ আগস্ট, ২০২০ ১৭:১৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



কক্ষে শিশু সন্তান, পাশেই মায়ের গলাকাটা ও বাবার ঝুলন্ত লাশ

মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গলে স্ত্রীকে খুন করে স্বামী আত্মহত্যা করার ঘটনা ঘটেছে। পুলিশ রবিবার (৯ আগস্ট) দুপুরে স্বামী-স্ত্রীর মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে পাঠিয়েছে।

মর্মান্তিক এই ঘটনাটি ঘটেছে শনিবার (৮ আগস্ট) ভোররাতে উপজেলার মির্জাপুর ইউনিয়নের বৌলাছড়া চা বাগানের শ্রমিক কলোনিতে। নিহতরা হলেন- অলকা তন্তুবায় (৩৫) ও তার স্বামী বিপুল তন্তুবায় (৪২)। অলকা বৌলাছড়া চা বাগানের নিবন্ধিত শ্রমিক। বিপুলের চা বাগানে কাজ ছিল না।

মির্জাপুর ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য এবং বৌলাছড়া চা বাগানের বাসিন্দা খোকন কর্মকার বলেন, ধারনা করা হচ্ছে পারিবারিক কলহের কারণে স্বামী স্ত্রীকে খুন করে নিজে আত্মহত্যা করেছেন।

মির্জাপুর ইউনিয়নের প্রাক্তন চেয়ারম্যান মো. ফিরোজ মিয়া মাস্টার জানান, সকাল ১০টার দিকে ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখতে পান লেবার কলোনিতে বিপুলের ঘরের মেঝেতে তার স্ত্রী অলকার গলাকাটা লাশ পরে আছে। ঘরের তীরের সঙ্গে বিপুল ফাঁসিতে ঝুলছে।

বিপুলের বড় মেয়ে শোভা (১৩) জানায়, সে এবং তার ভাই পাশের কক্ষে শুয়েছিল। সকালে মা-বাবার সঙ্গে ঘুমানো আড়াই বছরের ছোট বোনের কান্নার আওয়াজ পেয়ে সে ঘুম থেকে উঠে এই অবস্থা দেখতে পায়।

শ্রীমঙ্গল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) সোহেল রানা বলেন, ঘটনার প্রকৃত রহস্য জানতে তারা তদন্ত করছেন। প্রাথমিক ধারণা, পারিবারিক কলহের জেরে স্বামী স্ত্রীকে হত্যা করে পরে তিনি নিজে আত্মহত্যা করেছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা