kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১৬ আশ্বিন ১৪২৭ । ১ অক্টোবর ২০২০। ১৩ সফর ১৪৪২

১৩২ দিন পর কাজে যোগ দিলেন মধ্যপাড়া পাথরখনি শ্রমিকেরা

পার্বতীপুর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি   

৬ আগস্ট, ২০২০ ১৩:১৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



১৩২ দিন পর কাজে যোগ দিলেন মধ্যপাড়া পাথরখনি শ্রমিকেরা

দেশের একমাত্র উৎপাদনশীল দিনাজপুরের পার্বতীপুরে মধ্যপাড়া পাথরখনিতে দীর্ঘ ১৩২ দিন পর কাজে যোগদান করেছে খনির ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান জার্মানিয়া ট্রেস্ট কনসোর্টিয়ামের (জিটিসি) অধীনে কর্মরত ৮ শতাধিক শ্রমিক। গতকাল বুধবার (৫ আগস্ট) বিকেলে খনির অভ্যন্তরে শ্রমিকরা কাজে যোগদান করে।

জানা গেছে, করোনাভাইরাস সংক্রমণের কারণে সরকার সাধারণ ছুটি ঘোষণা করলে মধ্যপাড়া খনির উৎপাদন, রক্ষণাবেক্ষণ ও পরিচালন ঠিকাদার জিটিসি গত ২৬ মার্চ থেকে পাথর উৎপাদন বন্ধ রাখে। পরে সাধারণ ছুটি শেষে দেশের বিভিন্ন কলকারখানা চালু হলেও, বিদেশি প্রকৌশলী থাকায় মধ্যপাড়া খনির উৎপাদন বন্ধ রাখা হয়। দীর্ঘদিন বন্ধ থাকায় শ্রমিকরা বেকার হয়ে পড়ায়, তারা খনির পাথর উৎপাদন শুরু ও বকেয়া বেতনসহ ছয়দফা দাবিতে আন্দোলন শুরু করে।

গত ১৪-১৫ দিন ধরে জিটিসি খনির উৎপাদন শুরু করার লক্ষ্যে, শ্রমিকদের কাজে যোগদানের জন্য তাগিদ প্রদান করেন। কিন্তু শ্রমিকরা ছয় দফা দাবিতে অনড় থাকে। তবে শ্রমিকদের সাথে খনি কর্তৃপক্ষ একাধিকবার বৈঠক করে এবং সরকার দলের স্থানীয় নেতারা শ্রমিকদের কাজে যোগদানে উদ্বুদ্ধ করেন।

মধ্যপাড়া গ্রানাইট মাইনিং কম্পানি লিমিটেড ব্যবস্থপনা পরিচালক (এমডি) এ বি এম কামরুজ্জামান বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, শ্রমিকেরা কাজে যোগদান করলেও আগামী এক সপ্তাহের আগে তারা উৎপাদনে যেতে পারবে না। সরকারের স্বাস্থ্য বিভাগের স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করে সীমিত পরিসরে এসব শ্রমিক উৎপাদনে যাবে। এছাড়াও করোনা পরিস্থিতি উন্নতি না হলে খনিতে তিন শিফটে পাথর উত্তোলন করা সম্ভব হবে না বলে তিনি উল্লেখ করেন।

উল্লেখ্য, অব্যাহত লোকসানের মুখে বন্ধ হওয়ার উপক্রম হলে, মধ্যপাড়া খনির উৎপাদন, রক্ষণাবেক্ষণ ও পরিচালন ঠিকাদার হিসেবে বেলারুশের জেএসসি ট্রেস্ট সকটোসট্রয় ও দেশীয় প্রতিষ্ঠান জার্মানিয়া করপোরেশন লিমিটেড নিয়ে গঠিত জার্মানিয়া ট্রেস্ট কনসোর্টিয়ামকে (জিটিসি) দায়িত্ব দেওয়া হয়। জিটিসি ২০১৪ সালের ২০ ফেব্রুয়ারি থেকে খনিটি পরিচালনা করে আসছে। 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা