kalerkantho

বুধবার । ২১ শ্রাবণ ১৪২৭। ৫ আগস্ট  ২০২০। ১৪ জিলহজ ১৪৪১

নারায়ণগঞ্জের চাষাঢ়ার মাংসের হাট, ঘটেছিল জনসমাগম

দিলীপ কুমার মণ্ডল, নারায়ণগঞ্জ   

১ আগস্ট, ২০২০ ২১:৫৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নারায়ণগঞ্জের চাষাঢ়ার মাংসের হাট, ঘটেছিল জনসমাগম

নারায়ণগঞ্জ শহরের চাষাঢ়া রেলওয়ে মসজিদের সামনে প্রতিবছরের মতো এবারো মাংসের হাট বসেছে। ঈদুল আজহার এই দিনে বিকেল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত স্থায়ী হয় এই হাট। এই হাটের ক্রেতা বিক্রেতা মূলত অসহায়, ছিন্নমূল ও নিম্নবিত্ত মানুষ।

বাজারে আসা ক্রেতা-বিক্রেতাদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, ঈদের দিন বাড়ি বাড়ি গিয়ে যেসব অসহায় দুস্থ মানুষ মাংস সংগ্রহ করে তাদের একটি অংশ এই হাটে মাংস বিক্রি করতে আসে।

এ উপলক্ষে অনেকেই গ্রামের বাড়ি থেকে নারায়ণগঞ্জ শহরে ছুটে আসে মাংস সংগ্রহ ও বিক্রি করতে। তবে আশপাশের বস্তিবাসীও মাংস বেঁচতে বিকেলে চাষাঢ়ার হাটে ছুটে আসে। ক্রেতা মূলত নিম্ন মধ্যবিত্ত যারা কোরবানি দিতে সক্ষম নয় কিংবা অন্যের কাছে হাত পাততে সংকোচ বোধ করেন।

এছাড়াও যারা দিনমজুর, হোটেল ব্যবসায়ী তারাও এই হাট থেকে মাংস কিনেন। এ বছর মাংসের ধরণ অনুযায়ী হাটে ৪০০ টাকা থেকে ৫০০ টাকা কেজি দরে মাংস বিক্রি হয়েছে।

চাঁনমারী বস্তি এলাকার ফজিলাতুন্নেছা কালের কণ্ঠকে বলেন, সারা দিন শহরের বিভিন্ন এলাকায় গিয়ে ৫ কেজি মাংস সংগ্রহ করেছি। সেটাই সাড়ে ৪০০ টাকা দরে বেঁচে দিলাম। 

করোনার এই মহামারিতে ছেলেপেলে নিয়ে কয়টা দিন একবেলা খাবার যোগাতে পারব।
ফুটপাতের হোটেল ব্যবসায়ী নূর আলম কালের কণ্ঠকে বলেন, এখানে কম দামে টাটকা মাংস পাওয়া যায় তাই প্রতিবছরই এই হাটে আসি।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা