kalerkantho

বুধবার । ৫ কার্তিক ১৪২৭। ২১ অক্টোবর ২০২০। ৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

হাওরে পোনা ও ডিমওয়ালা মাছ নিধনের মহোৎসব

মদন (নেত্রকোনা) প্রতিনিধি   

২৭ জুলাই, ২০২০ ১৫:২২ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



হাওরে পোনা ও ডিমওয়ালা মাছ নিধনের মহোৎসব

বর্ষার পানি আসার সাথে সাথেই মৎস্য ভান্ডার নামে খ্যাত নেত্রকোনার মদনের হাওরাঞ্চলে দেশীয় প্রজাতির ডিমওয়ালা মা ও পোনা মাছ নিধনের মহোৎসব শুরু হয়েছে। তবে এ বিষয়ে প্রশাসনের নিয়মিত নজরদারি না থাকায় ভরা মৌসুমেও হাট বাজারগুলোতে বড় মাছের আকাল দেখা দিয়েছে।

বর্ষার পানি হাওরের জলাশয়গুলোতে প্রবেশের সাথে সাথেই এক শ্রেণির প্রভাশালী অসাধু মৎস্য শিকারিরা সরকার নিষিদ্ধ কারেন্ট, মশারি, বাদাই জাল ও মাছ ধরার নানা উপকরণ দিয়ে অবাধে মা ও পোনা মাছ নিধন করছে। এ সব মাছ হাট-বাজারে প্রকাশ্যে বিক্রি করার সুযোগ পাওয়ায় উপজেলার নদী, খাল-বিলসহ প্রত্যন্ত অঞ্চলের জলাশয়গুলোতে অবৈধ জাল দিয়ে ঘিরে ফেলা হয়েছে। এর ফলে  এলাকায় নিত্যদিন যাত্রী ও মালবাহী নৌকার চালকদের সাথে জেলেদের তর্ক-বির্তক ও জরিমানা আদায়ের ঘটনা ঘটেই চলছে।

সরেজমিন ঘুরে দেখা গেছে, উপজেলার নূরেশ্বর বিল, কয়রা বিল, পাগলা বিল, বাওয়াইচ বিল, বরাঙ্গ বিল, চারিয়া বিল, বর্নি নদী, বালই নদী, সিনাই নদী, বয়রাহালা নদী, সাইডুলী নদী, ধলাই নদী, তলার হাওরসহ উন্মুক্ত জলাশয়ে সকাল থেকে গভীর রাত পর্যন্ত নিষিদ্ধ কারেন্ট, মশারি দিয়ে তৈরি নেট জাল, বেড় জাল, বাদাই জালসহ মাছ ধরার নানা উপকরণ দিয়ে মা ও পোনা মাছ নিধনে মেতে উঠেছে এক শ্রেণির প্রভাবশালী অসাধু মৎস্য শিকারিরা। পৌরসদরসহ বিভিন্ন হাট-বাজারে ডিমওয়ালা মা মাছ ও পোনা মাছ প্রকাশ্যে বিক্রি করা হচ্ছে।

পৌর সদরের মদন বাজার এলাকার বাসিন্দা শামছুল আলম, বালালীর রহিচ মিয়া, ধুবাওয়ালার বাবুল মাস্টার, ফতেপুর গ্রামের রতন মিয়া জানান, প্রতিদিনেই মুক্ত জলাশয়গুলোতে সরকার নিষিদ্ধ জাল দিয়ে অবাধে মা ও পোনা মাছ নিধন করায় হাট-বাজারগুলোতে বড় মাছের আকাল দেখা দিয়েছে। এলাকায় প্রায় সময়েই জেলে ও নৌকা চালকদের সাথে তর্ক-বির্তক ও জরিমানা আদায়ের ঘটনা ঘটছে তাতে যেকোনো মুহূর্তে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের আশঙ্কা রয়েছে। এ ব্যাপারে আমরা কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করছি।

বাগজান গ্রামের নৌকা চালক খাইরুদ্দিন জানান, মদন উপজেলার নদী খাল-বিল ডোবা-নালা ও অন্যান্য জলাশয়গুলোতে জেলেরা জাল পেতে রাখায় নৌকা নিয়ে যাতায়াত দূরূহ হয়ে পড়েছে। প্রায় সময় জরিমানা গুনতে হয়। আমরা এর সুরাহা চাই।

মদন উপজেলা ভারপ্রাপ্ত মৎস্য কর্মকর্তা গোলাম মোস্তফা জানান, অভিযান শুরু হয়েছে। ইউএনও স্যারের সাথে কথা বলেছি, মা ও পোনা মাছ নিধন রোধে সবাইকে সচেতন করে অচিরেই অভিযান পরিচালনা করা হবে।

মদন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বুলবুল আহমেদ জানান, উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তার সাথে কথা হয়েছে। দ্রুত অভিযান করা হবে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা