kalerkantho

শনিবার । ২৪ শ্রাবণ ১৪২৭। ৮ আগস্ট  ২০২০। ১৭ জিলহজ ১৪৪১

ডাকাত সন্দেহ

আটকের পর ছেড়ে দেওয়া হলো ৮ ব্যবসায়ী ও নেতাকে

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি    

৬ জুলাই, ২০২০ ০৩:২৫ | পড়া যাবে ১ মিনিটে



আটকের পর ছেড়ে দেওয়া হলো ৮ ব্যবসায়ী ও নেতাকে

মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখানের বালুচর ইউনিয়নের বালুচর বাজারসংলগ্ন ধলেশ্বরী নদীতে গত শনিবার রাতে ডাকাত সন্দেহে আটজনকে আটক করে পুলিশ। জেলেদের সঙ্গে বিবাদে বৈধ অস্ত্র দিয়ে ফাঁকা গুলি করায় তাদের আটক করা হয়। পরে যাচাই করে দেখা যায়, তারা ডাকাত নন, ব্যবসায়ী ও রাজনৈতিক নেতা। এরপর তাঁদের ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র এ তথ্য জানায়।

রাত ৯টার দিকে ঢাকা থেকে আসা কিছু ব্যবসায়ী ও রাজনৈতি নেতা নৌ ভ্রমণে আসেন। এ সময় তাদের ট্রলারটি জেলেদের জালে আটকে গেলে জেলেরা প্রতিবাদ করে এবং ক্ষতিপূরণ চান।

কিন্তু তারা জেলেদের ধমক দেন এবং তাদের লাইসেন্স করা আগ্নেয়াস্ত্র উঁচিয়ে চার-পাঁচ রাউন্ড ফাঁকা গুলি করে ভয়ভীতি দেখান। জেলেদের ডাক-চিৎকারে এলাকাবাসী ডাকাত সন্দেহে তাদের (ব্যবসায়ী-নেতা) ঘেরাও করে পুলিশে খবর দেয়। 

জ্যেষ্ঠ সহকারী পুলিশ সুপার (সিরাজদিখান সার্কেল) রাজিবুল ইসলাম এবং থানার ওসি মো. ফরিদউদ্দিন ঘটনাস্থলে গিয়ে তাদের আটক করে থানায় নেন। 

সিরাজদিখান থানার ওসি মো. ফরিদ উদ্দিন জানান, ওই ব্যবসায়ী ও নেতারা ঘুরতে এসে ডাকাতির ভয়ে অস্ত্র সঙ্গে রেখেছেন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা