kalerkantho

শুক্রবার । ১৯ আষাঢ় ১৪২৭। ৩ জুলাই ২০২০। ১১ জিলকদ  ১৪৪১

হালুয়াঘাটে উদ্বোধনের ৩ মাসের মাথায় ব্রিজে ফাটল

নিজস্ব প্রতিবেদক, ময়মনসিংহ   

১ জুন, ২০২০ ২৩:০৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



হালুয়াঘাটে উদ্বোধনের ৩ মাসের মাথায় ব্রিজে ফাটল

হালুয়াঘাট ও ধোবাউড়া উপজেলার মানুষের দীর্ঘদিনের দাবি ছিল নাগলা থেকে গোয়াতলা রাস্তার উপর গোদারিয়া নদীর উপর একটি ব্রিজ নির্মাণের। তারই প্রেক্ষিতে ২০১৫ সালে ব্রিজটির টেন্ডার ও ২০১৬-১৭ সালে এই ব্রিজটির নির্মাণ কাজ শুরু হয়। নবিদের প্রকল্পের আওতায় আরএন্ডএইচ (নাগলা)- গোয়াতলা জিসি শাকুয়াই জিডি সড়কের ১৬.৬৮০ কি. মি. চেইনেজে ৯ কোটি ২৯ লক্ষ টাকা ব্যয়ে ১৬৫.২০ মি. দৈর্ঘ্য পিসি গার্ডার ব্রিজের নির্মাণ কাজ শেষ হয় এ বছরের ১০ মার্চ।

স্থানীয় সংসদ সদস্য জুয়েল আরেং এই ব্রিজের উদ্বোধন করেন। স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর (এলজিইডি) হালুয়াঘাট এর বাস্তবায়ন করেন। ৩০ মে হঠাৎ ব্রিজের বিভিন্ন জায়গায় ফাটল দেখা দেয়। বিষয়টি নিয়ে এলাকায় আতঙ্কের সৃষ্টি হয়।

এ বিষয়ে স্থানীয় আব্দুল লতিফ বলেন, ব্রিজটি নির্মাণে নিন্ম মানের কাঁচামাল ব্যবহার করা হয়েছে। আমরা তখনই তাদের বলেছিলাম। কিন্তু এ বিষয়ে তারা কর্ণপাত করেনি। আমরা চাই প্রশাসন যেন এ বিষয়ে ব্যবস্থা নেয়।

স্থানীয় চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর হোসেন কালের কণ্ঠকে বলেন, হালুয়াঘাট ও ধোবাউড়ার মানুষের দীর্ঘদিনের দাবির প্রেক্ষিতে গোদারিয়া নদীর উপর ব্রিজ নির্মাণ করা হয়। কিন্তু উদ্বোধনের ৩ মাসের মাথায় ব্রিজের বিভিন্ন জায়গায় ফাটল দেখা দিয়েছে। আমি সরজমিনে গিয়ে দেখে এসেছি এবং উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও উপজেলা প্রকৌশলীকে বিষয়টি জানিয়েছি। ব্রিজটি যারা নির্মাণ করেছেন তাদের চরম গাফিলতি রয়েছে।

এ বিষয়ে উপজেলা প্রকৌশলী শান্তনু ঘোষ বলেন, আমি ব্রিজের ফাটলের বিষয়ে অভিযোগ পেয়েছি। আগামীকাল (২ জুন) আমরা ব্রিজটি দেখতে যাব। আমরা দেখে এ বিষয়ে ব্যবস্থা নেব।

ব্রিজটির ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান মেসার্স বাতেন প্রকৌশলীর ব্যবস্থাপক মো. আব্দুল্লাহ আল বাসেদ বলেন, এলজিইডি অফিস থেকে আমাকে বিষয়টি জানানো হয়েছে। আমি কাল এসে দেখব। যদি কোথায় ফেটে যায় আমরা ঠিক করে দেব।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা