kalerkantho

রবিবার । ২৮ আষাঢ় ১৪২৭। ১২ জুলাই ২০২০। ২০ জিলকদ ১৪৪১

ঈদ জামাত নিয়ে সংঘর্ষ বানারীপাড়ায়

বানারীপাড়া (বরিশাল) প্রতিনিধি   

২৫ মে, ২০২০ ০১:১৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ঈদ জামাত নিয়ে সংঘর্ষ বানারীপাড়ায়

বরিশাল বানারীপাড়ার চাখারে ঈদ জামাতের স্থান নির্ধারণকে কেন্দ্র করে দু’পক্ষের সংঘর্ষ হয়েছে। এতে ইউপি সদস্য, ছাত্রলীগ নেতাসহ সাতজন আহত হয়েছেন। তাদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। রবিবার সন্ধ্যায় চাখার ইউনিয়নের বড় ভৈৎসর গ্রামে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

সূত্র জানায়, সংঘর্ষে মারাত্মক জখম হয়েছেন স্থানীয় ৪ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মেজবাউদ্দিন সোহেল, ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি মাসুম বিল্লাহ,তার ছোট ভাই বাবু আকন,ব্যবসায়ী মোস্তাফিজুর রহমান টুটুল, হাবিবুর রহমান মোল্লা লিটন ও ওয়ার্ড যুবদলের সভাপতি বিপ্লব। আহতদের বানারীপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও চাখার ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান খিজির সরদার জানান, সরকারি নির্দেশনা অনুযায়ী ঈদুল ফিতরের জামাত মসজিদে পড়ার জন্য রবিবার দুপুরে মাইকিং করা হয়। বড় ভৈৎসর গ্রামের মসজিদে ঈদের জামাত পড়ার সিন্ধান্ত মেনে নেননি ইউপি সদস্য মেজবাউদ্দিন সোহেল, ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি বাবুল সিকদারসহ কয়েকজন। তারা স্থানীয় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে প্যান্ডেল নির্মাণ করে সেখানে ঈদ জামাত পড়ার ঘোষণা দেন।

সূত্র জানায়, দুটি স্থানে ঈদ জামাত নিয়ে স্থানীয়ভাবে তর্ক-বিতর্ক শুরু হয়। ওয়ার্ড যুবদলের সভাপতি বিপ্লব  বিষয়টির জন্য ইউপি চেয়ারম্যানকে দায়ী করে গালাগালি করেন। এরপর বিষয়টি নিয়ে বিপ্লব তর্কে জড়ান বাবু আকনের সঙ্গে। একপর্যায়ে তাদের হাতাহাতি হয়। এ খবর পেয়ে দুপক্ষ জড়ো হলে সংঘর্ষ শুরু হয়। আলোজনায় যুক্ত হয় পূর্ব নানা বিরোধ। সব মিলিয়ে বিক্ষিপ্ত হামলা ও সংঘর্ষে আহত হন সাতজন। রাতে আহতদের দেখতে স্থানীয় সংসদ সদস্য মো. শাহে আলম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে যান। তিনি সকল পক্ষকে শান্ত থাকার আহ্বান জানান

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা