kalerkantho

রবিবার। ২৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ । ৭ জুন ২০২০। ১৪ শাওয়াল ১৪৪১

যে কারণে মাকে গ্রামছাড়া করল ছেলেরা

দিরাই-শাল্লা (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধি   

১৪ এপ্রিল, ২০২০ ১৬:৩৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



যে কারণে মাকে গ্রামছাড়া করল ছেলেরা

গ্রামে ঢাকাফেরত একটি পরিবার রয়েছেন হোম কোয়ারেন্টিনে। ওই কোয়ারেন্টন সেই বাড়িতে গিয়ে চা পান করেছেন বৃদ্ধা। আর এই অপরাধে ৯০ বছরের বৃদ্ধা মাকে বাড়ি থেকে ছেলেরা বের করে দিয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। দুইদিন ধরে গ্রামের বাহিরে রাস্তায় রাস্তায় ঘুরছেন বৃদ্ধ মহিলাটি। কেউ খাবারই দিচ্ছেনা। ঘটনাটি সুনামগঞ্জের শাল্লা উপজেলার হবিবপুর ইউপির নিয়ামতপুর গ্রামে। 

তিনি গ্রামের মৃত অক্ষয় দাসের স্ত্রী অমৃতবালা দাস। তার দুই ছেলে যোগেশ দাস ও রণধীর দাস। গত ১২ এপ্রিল ওই বৃদ্ধা নারীকে গ্রাম ছাড়া করা হয়। এরপর তিনি রাস্তায় ঘুরে বেড়াচ্ছেন। 

অমৃতবালা দাস জানান, ঢাকা থাইক্কা কেডা গ্রামে আইছে, আর এরা কয় আমি বুঝি এরার বাড়িত গেছি। এর লাগি আমারে করোনা কইয়া বাইর কইরা দিছে। মহিলা মেম্বার জ্যোৎস্না রাণী দাসের কথাও ছেলেরা রাখেনি। ওয়ার্ড সদস্য সুব্রত সরকারের কাছে বাড়ি গিয়ে তাকেও পাননি বলে জানান বৃদ্ধা মহিলা।

ওয়ার্ড সদস্য সুব্রত সরকার বলেন, ঘটনাটি অমানবিক। আমি বিষয়টি ফেইসবুকে দেখে মহিলাকে খুঁজে বের করে তার বাড়িতে নিয়ে এসেছি। ছেলেরা জানিয়েছে মহিলাটি একটু অন্যরকম, ছেলেদের সাথে বনিবনাত হয়না। মাঝে মাঝে এভাবে বাড়ি থেকে বেড়িয়ে যায়। উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আপাতত কিছু চাল দিয়েছেন। 

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আল মুক্তাদির হোসেন বলেন, আমি ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানকে অবগত করেছি এবং তার কাছে ত্রাণ পৌঁছে দেওয়া হবে। প্রয়োজনে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে পাঠাবেন বলে তিনি জানান।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা