kalerkantho

শনিবার । ২৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ । ৬ জুন ২০২০। ১৩ শাওয়াল ১৪৪১

চট্টগ্রামে আইসোলেশনে মারা যাওয়া কিশোরের করোনা ছিল না

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম   

১ এপ্রিল, ২০২০ ২০:৫৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



চট্টগ্রামে আইসোলেশনে মারা যাওয়া কিশোরের করোনা ছিল না

প্রায় ১০ ঘণ্টার ব্যবধানে চট্টগ্রামে আইসোলেশনে থাকা আরো একজনের মৃত্যু হয়েছে। জ্বর, কাশি ও শ্বাসকষ্ট নিয়ে এক কিশোর নগরের আন্দরকিল্লাস্থ চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালে ভর্তির সাড়ে ৫ ঘণ্টার মাথায় মারা যায়।

আজ বুধবার সকাল ৭টা ২০ মিনিটে মারা যাওয়ার পর দুপুরে করোনাভাইরাস পরীক্ষা করা হলে রিপোর্ট নেগেটিভ (শনাক্ত হয়নি) পাওয়া গেছে বলে জানানো হয়।

জানতে চাইলে ওই হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক (উপ-পরিচালক) ডা. অসীম কুমার নাথ বুধবার সন্ধ্যায় কালের কণ্ঠকে বলেন, ১৬ বছর বয়সী ওই কিশোরের ৫ দিন ধরে জ্বর, কাশি ও শ্বাসকষ্ট ছিল। কক্সবাজার হাসপাতালে ভর্তির পর সেখান থেকে মঙ্গলবার রাতে চট্টগ্রাম মেডিক্যালে (চমেক হাসপাতাল) রেফার (স্থানান্তর) করা হয়। চমেক হাসপাতালে জরুরি বিভাগে নেওয়া হলে সেখান থেকে রাত ২টা/৩টার দিকে জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়।

তিনি জানান, চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যাওয়ার পর সকাল ১১টার দিকে নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষা করা হয়। রিপোর্ট নেগেটিভ (করোনাভাইরাস পাওয়া যায়নি) এসেছে। শুনেছি ওই কিশোর মাদরাসার ছাত্র। তার বাবাও আমাদের এখানে আইসোলেশনে ছিল। এখন চলে যাচ্ছেন।

এরআগে চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ড উপজেলার বিআইটিআইডিতে আইসোলেশনে থাকা ৫৫ বছর বয়সী এক নারী মারা গেছেন। জেলার লোহাগাড়া থেকে করোনাভাইরাস আক্রান্ত সন্দেহে আসার পর এ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গতকাল মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে ওই নারী মারা যান। তবে মারা যাওয়া এ নারী করোনাভাইরাসে মৃত্যু হয়নি বলে জানিয়েছেন ওই হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. শাকিল আহমেদ। 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা