kalerkantho

রবিবার। ২৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ । ৭ জুন ২০২০। ১৪ শাওয়াল ১৪৪১

চট্টগ্রামে করোনা সংক্রমণ ও বিস্তাররোধে ১০ সিদ্ধান্ত

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম   

৩০ মার্চ, ২০২০ ০১:১৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



চট্টগ্রামে করোনা সংক্রমণ ও বিস্তাররোধে ১০ সিদ্ধান্ত

চট্টগ্রাম মহানগরীতে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ও বিস্তার প্রতিরোধ এবং আক্রান্ত ব্যক্তিদের ব্যবস্থাপনার বিষয়ে শতভাগ প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে বলে দাবি করেছে প্রশাসন। গতকাল রবিবার দুপুরে চট্টগ্রাম নগর পুলিশ কমিশনার কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত এক সভায় এই দাবি করা হয়। 

সভায় করোনা মোকাবেলায় ১০টি সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এসব সিদ্ধান্ত যথাযথভাবে বাস্তবায়ন সম্ভব হলে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ও বিস্তাররোধ করা সম্ভব হবে বলে কর্মকর্তারা মনে করছেন।

সিদ্ধান্তগুলোর মধ্যে রয়েছে সার্বক্ষণিক আইন-শৃঙ্খলাবাহিনীর তদারকি, করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগীকে অ্যাম্বুলেন্সে করে হাসপাতালে নেওয়া, সিএমপির হটলাইনে (০১৪০০৪০০৪০০) ফোন করলে মহানগরে কর্মরত চিকিৎসকদের যাতায়াতের সুবিধা প্রদান, সেনাবাহিনী পুলিশ, ফায়ার সার্ভিস, ওয়াসা ও সিটি করপোরেশনের সমন্বয়ে নগরীকে জীবাণুনাশক ঔষধ ছিটানো, করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী মারা গেলে নগরীর নির্দিষ্ট স্থানে কবরস্থান/সৎকারের জন্য স্থান নির্ধারণ এবং এ সংক্রান্ত কমিটি গঠন করা, আইসিইউ সুবিধা সম্বলিত হাসপাতালকে ডেডিকেট করা, নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যাদি ও ঔষধের মজুদ ও মূল্যবৃদ্ধির বিষয়ে নজরদারি বৃদ্ধি করা, সিভিল সার্জন কর্তৃক টেলিমেডিসিন সুবিধার জন্য দক্ষ ডাক্তারদের নিয়ে টিম গঠন করা, আইসিইউতে দায়িত্ব পালনরত চিকিৎসক ও নার্সদের সমন্বিত টিম গঠন এবং তাদের থাকা খাওয়ার ব্যাপারে আইসোলেটেড হোমের সুব্যবস্থা করা এবং জনগণের সুবিধার জন্য দোকানে আড্ডা না দিয়ে খাবার কিনে বাসায় যাওয়ার জন্য দোকান-রেস্টুরেন্ট ইত্যাদি খোলা রাখা।

নগর পুলিশ কমিশনারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন নগরীর মেয়র আ জ ম নাসির উদ্দিন। অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন নগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার আমেনা বেগম, এস এম মোস্তাক আহমেদ খান, শ্যামল কুমার নাথ, বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক ডা. হাসান শাহরিয়ার করিব, সিভিল সার্জন সেখ ফজলে রাব্বী। এছাড়া জেনারেল হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ও জেলা প্রশাসন এবং সরকারি বিভিন্ন দপ্তরের প্রতিনিধিগণ সভায় উপস্থিত ছিলেন।

এই বিষয়ে নগর পুলিশ কমিশনার মো. মাহাবুবর রহমান কালের কণ্ঠকে বলেন, করোনাভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধ এবং আক্রান্তদের ব্যবস্থাপনার বিষয়ে শতভাগ প্রস্তুতি নিয়েছে প্রশাসন। সমন্বিতভাবে কাজ করলে এইসব কাজ সহজে সমাধান করা সম্ভব হবে। এসব বিষয়ে আলোচনার পর গৃহীত সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন হবে। 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা