kalerkantho

রবিবার। ২৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ । ৭ জুন ২০২০। ১৪ শাওয়াল ১৪৪১

চালের আশায় ১০ কিলোমিটার হেঁটে গেলেন বৃদ্ধা, অতঃপর...

মো. মোস্তাফিজুর রহমান, কমলগঞ্জ প্রতিনিধি   

২৮ মার্চ, ২০২০ ১৫:৪৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



চালের আশায় ১০ কিলোমিটার হেঁটে গেলেন বৃদ্ধা, অতঃপর...

মৃত ব্যক্তির বাড়িতে চাল বিতরণ হবে, এমন সংবাদ শুনে চাল পাওয়ার আশায় উপজেলা সদর চন্ডিপুর গ্রাম হতে প্রায় ১০ কিলোমিটার দূরে পায়ে হেঁটে গিয়েছিলেন বৃদ্ধা জমিলা খাতুন (৬৫)। কিন্তু গিয়ে দেখেন সেখানে কেউ মারা যাননি। চাল না পেয়ে অতঃপর বিমর্ষ হয়ে বৃদ্ধা বন্ধ এক দোকানের সামনে বসে ছিলেন। স্থানীয় এক সংবাদকর্মী বিষযটি নজরে আসলে নিজেই কিনে দিলেন কিছু খাবার। এ পরিস্থিতি বহু দিনমজুর ও খেটে খাওয়া মানুষের।

ঘটনাটি আজ শনিবার সকাল ১১টায় মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার মাধবপুর ইউনিয়নের মাধবপুর বাজারের।

সাংবাদিক আসহাবুল ইসলামকে বৃদ্ধা জানান, পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ড চন্ডিপুর গ্রামে জমিলা খাতুনের বাড়ি। স্বামী মৃত জয়নাল মিয়া। একসময় সব ছিল। বর্তমানে তিন ছেলে ও স্বামী বেঁচে নেই। তিনকন্যা সন্তান নিয়ে অভাবের সংসার। নামতে হয়েছে ভিক্ষাবৃত্তিতে।

দেশে করোনাভাইরাস দেখা দিলে, ভিক্ষার জন্য মানুষের বাড়িতে গেলেও কেউ ভিক্ষা দেয় না। ভিক্ষা করে যা পেতেন তা দিয়েই সংসার চলে।

শনিবার সকালে তিনি মাইকে শোনেন মাধবপুরে একজন মানুষ মারা গেছে। চাল মিলবে এমন আশায় প্রচণ্ড রোদ্দের মধ্যে পৌর এলাকা হতে পায়ে হেঁটে চলে আসেন মাধবপুরে। কিন্তু এখানে এসে দেখেন কেউ মারা যায়নি।

বিমর্ষ অবস্থায় চোখ মুখ হতাশার ছাপ নিয়ে একটি বন্ধ দোকানের সামনে বসে ছিলেন। পরে কিছু খাদ্যসামগ্রী সাহায্য নিয়ে আবার পায়ে হেঁটে নিজ গন্তব্যে ফিরে যান বৃদ্ধা।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা