kalerkantho

শনিবার । ২৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ । ৬ জুন ২০২০। ১৩ শাওয়াল ১৪৪১

কাজিপুরের চরাঞ্চলে ঢাকা ফেরত আতঙ্ক!

কাজিপুর (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি   

২৮ মার্চ, ২০২০ ১২:২০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



কাজিপুরের চরাঞ্চলে ঢাকা ফেরত আতঙ্ক!

সিরাজগঞ্জের কাজিপুর উপজেলার চরাঞ্চলের ছয় ইউনিয়নের মানুষ ঢাকা ফেরতদের নিয়ে চরম আতঙ্কে রয়েছে। গতকাল থেকে তারা ঢাকা থেকে আসা নিজেদের আত্মীয়-স্বজন আর অপরিচিতি লোকদের বেপরোয়া চলাচলে প্রচণ্ড ভয়ের মধ্যে আছেন বলে একাধিক ব্যক্তি ফোন করে কালের কণ্ঠকে জানিয়েছেন।

কাজিপুরের ১২টি ইউনিয়নের ছয়টিই যমুনার চরাঞ্চল। ঢাকার বিভিন্ন তৈরি পোশাক কারখানা ও বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের চরাঞ্চলের প্রায় ২০ হাজার মানুষ কর্মরত আছে। তারা সম্প্রতি ছুটি পেয়ে বাড়ি ফিরেছে। 

সরকারি নির্দেশ অনুযায়ী ঢাকা ফেরতদের সবাইকে হোম কোয়ারেন্টিনে থাকার কথা। কিন্তু এই নিয়ম তারা মানছেন না। শুক্রবার গভীর রাত পর্যন্ত চরের রুঘুনাথপুর বাজার, নিশ্চিন্তপুর বাজার, জজিরা, নাটুয়ারপাড়া, কুমারিয়াবাড়ি বাজারের স্টলে তাদের সরব উপস্থিতি লক্ষ্য করা গেছে। এছাড়া ঢাকা ফেরতরা মোটরবাইক ভাড়া করে আত্মীয়-স্বজনদের বাড়ি, হাট-বাজারে যাচ্ছেন। এতে করে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কায় রয়েছে স্থানীয়রা।

নিশ্চিন্তপুর ইউনিয়নের স্কুল শিক্ষক রেজাউল করিম জানান,  ‘ঢাকা থেকে আসা লোকজনের চলাচলে আমরা শঙ্কিত। দীর্ঘ ছুটিতে তারা ঈদের আনন্দে মেতেছেন। অথচ তারা যে করোনার জীবাণু বহন করছে না, একথা বলা যাবে না। তা হলেতো আমরা সবাই আক্রান্ত হবো।’

এ বিষয়ে তিনি আর জানান, থানা পুলিশকে ফোন করলেও পাওয়া যায় না।

মনসুর নগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি মানিক মিয়া জানান,  ‘ রঘুনাথপুর বাজারে রাত অবধি ঢাকা ফেরতদের আনাগোনায় আমরা চরম করোনা ঝুঁকির মধ্যে রয়েছি। নিষেধ করলেও তারা শোনে না। ’

চরাঞ্চলের অবস্থিত নাটুয়ারপাড়া পুলিশ ফাঁড়ির আইসি পরিদর্শক গৌতম চন্দ্র মালী জানান, ‘আমরা এলাকায় টহল দিচ্ছি। এখনও কুমারিয়াবাড়ি আছি। লোকজনকে চলাচলে নিষেধ করছি।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা