kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৭ চৈত্র ১৪২৬। ৩১ মার্চ ২০২০। ৫ শাবান ১৪৪১

ভারতফেরতদের বাবার মৃত্যু, আতঙ্কিত এলাকাবাসী

বেনাপোল (যশোর) প্রতিনিধি   

২৬ মার্চ, ২০২০ ১৮:২৩ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ভারতফেরতদের বাবার মৃত্যু, আতঙ্কিত এলাকাবাসী

যশোরের বেনাপোলে ওজিহার (৬৫) নামের এক বৃদ্ধের মুত্যু হয়েছে। পুলিশ ও স্বাস্থ্য বিভাগের প্রতিনিধিরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। বেনাপোল পোর্ট থানার কাগজপুকুর গ্রামের আব্দুল গনির ছেলে ওজিহার বুধবার দিবাগত রাতে নিজ বাড়িতে শ্বাসকষ্টে মারা যায়।

জানা যায়, তার দুই পুত্র ও এক কন্যা এক সপ্তাহ আগে ভারতের মুম্বাই শহর থেকে চোরাই পথে দেশে ফেরে। হোম কোয়ারেন্টিন মানেনি তারা। তাদের বাড়িতে দেওয়া হয়নি লাল পতাকা। মৃত্যুর পর দেয়া হলো লাল পতাকা টাঙিয়ে। তবে স্বজনদের দাবি ওজিহার একজন এ্যাজমা রোগী। বেশ কিছু দিন ধরে অসুস্থ ছিল। তার স্বাভাবিক মৃত্যু হয়েছে।


স্থানীয়রা জানায়, ওজিয়ারের মেয়ে আম্বিয়া এবং ছেলে তরিকুল ইসলাম ভারতের বোম্বে শহরে কাজ করে জীবিকা নির্বাহ করত। সেখান থেকে এক সপ্তাহ আগে তারা চোরাইপথে দেশে প্রবেশ করার পর বাড়িতে লুকিয়ে ছিল। এ কারণে তাদের পিতার মৃত্যুর পর এলাকাবাসীর মাঝে মৃত্যু নিয়ে নানা সন্দেহ উঠেছে। এ ঘটনার পর এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। 

স্থানীয় বেনাপোল পৌর সভার কাগজপুকুর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর আমিরুল ইসলাম বলেন, ওজিয়ার রহমান একজন বয়োবৃদ্ধ লোক। তার শ্বাসকষ্ট ছিল। তবে তার পরিবারের সদস্যরা ভারত থেকে আসার পর শ্বাসকষ্ট বেশি দেখা দেওয়া ও মৃত্যু নিয়ে এলাকার মানুষের মাঝে নানা সন্দেহ দেখা দিয়েছে।
 

স্থানীয় গ্রাম্য ডাক্তার ইদ্রিস আলী বলেন, গত রাতে রোগীর প্রেসার না পেয়ে আমি সেলাইন ও গ্যাসের ওষুধ দিয়েছিলাম। এ ছাড়া ওই রোগী দীর্ঘদিন যাবৎ শ্বাসকষ্টে ভুগছিল। তার এ্যাজমা ছিল।

বেনাপোল পোর্ট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মামুন খান বলেন, মৃত্যুর খবর শুনে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তাকেও বিষয়টি অবগত করা হয়েছে।

শার্শা উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাক্তার ইউসুফ আলী জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। মারা যাওয়া ব্যক্তির মৃত্যু স্বাভাবিক। তিনি দীর্ঘদিন যাবত শ্বাসকস্টে ভুগছিলেন। তিনি একজন এ্যাজমা রোগী ছিলেন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা