kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৪ চৈত্র ১৪২৬। ৭ এপ্রিল ২০২০। ১২ শাবান ১৪৪১

বড়লেখায় বাণিজ্য মেলা বন্ধের দাবি ব্যবসায়ীদের

বড়লেখা (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি   

২৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ২৩:৩৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বড়লেখায় বাণিজ্য মেলা বন্ধের দাবি ব্যবসায়ীদের

মৌলভীবাজারের বড়লেখায় মাসব্যাপী শিল্প ও বাণিজ্য মেলা বন্ধের দাবিতে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রেখে বিক্ষোভ করেছেন ব্যবসায়ীরা। হাজীগঞ্জ বাজার বণিক সমিতির উদ্যোগে সোমবার (২৪ ফ্রেব্রুয়ারি) দুপুর আড়ইটায় পৌর শহরে এই বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ করা হয়।

প্রতিবাদ সভায় সভাপতিত্ব করেন বণিক সমিতির সহ সভাপতি সাইদুল ইসলাম। বণিক সমিতির সদস্য আব্দুল লতিফের সঞ্চালনায় বক্তব্য দেন হাজীগঞ্জ বাজার বণিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ছাদ উদ্দিন, ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক হারুনুর রশীদ বাদশা, ব্যবসায়ী আবুল হোসেন, জুনেদ আহমদ, মুহিবুর রহমান ও জাকির হোসেন প্রমুখ।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, ‘মেলা স্থগিতে আদালতের নির্দেশ দিলেও তা অমান্য করে আয়োজকরা মেলা চালিয়ে যাচ্ছেন। আদালতের নির্দেশ না মেনে তারা কিভাবে মেলা চালিয়ে যায়। বিষয়টি আমাদের অবাক করেছে। অবিলম্বে মেলা বন্ধ করতে প্রশাসনের প্রতি জোর দাবি জানাচ্ছি। অন্যথায় কঠোর কর্মসূচি দেওয়া হবে।’

স্থানীয় সূত্র জানায়, গত বছরের ডিসেম্বরে বড়লেখায় মেলা বসানোর প্রস্তুতি নিলেও হাজীগঞ্জ বাজারের ব্যবসায়ীদের প্রতিরোধের মুখে তা সফল হয়নি। গত ৩ ডিসেম্বর আয়োজকরা উচ্চ আদালতে রিট পিটিশন করে বড়লেখা সরকারি কলেজে মাসব্যাপী মেলার আয়োজন করে। গত  ১০ ফেব্রুয়ারি মেলার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করা হয়। 

এই অবস্থায় মেলা বন্ধ করতে বড়লেখা হাজীগঞ্জ বাজার বণিক সমিতি উচ্চ আদালতে আপিল করেন। এরই প্রেক্ষিতে চেম্বার জজ (এ্যাপিলেট ডিভিশন) মেলা আয়োজনের পক্ষে আয়োজকদের উচ্চ আদালতে দায়ের করা রিট পিটিশনের ওপর গত রবিবার (১৬ ফেব্রুয়ারি) স্থিতাবস্থা জারি করে পূর্বের ইস্যুকৃত রুল আগামী ১৯ এপ্রিল পরবর্তী শুনানি পর্যন্ত স্থগিত করেন।

এ ব্যাপারে বাংলাদেশ দৃষ্টি প্রতিবন্ধী কল্যাণ সোসাইটির বিভাগীয় সমন্বয়ক এম এ মঈন খান বাবলু সোমবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে বলেন, ‘আদালতের নির্দেশের অনুলিপি আমরা আজকে হাতে পেয়েছি। নির্দেশনা পাওয়ার পরপরই মেলা বন্ধ করেছি।’

এ ব্যাপারে বড়লেখা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. শামীম আল ইমরান সোমবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যায় বলেন, ‘উচ্চ আদালতের আপিল বিভাগ মেলা স্থগিত করেছেন। জেলা প্রশাসক কার্যালয় থেকে চিঠি পাওয়ার পর তাদের (মেলার আয়োজকদের) জানিয়ে দেওয়া হয়েছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা