kalerkantho

শনিবার । ৯ ফাল্গুন ১৪২৬ । ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২০। ২৭ জমাদিউস সানি ১৪৪১

নবীনগরে পড়ার দাবিতে বই হাতে মানববন্ধন

‘মুজিববর্ষে দাবি জানাই, সবার হাতে বই চাই’

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি   

২৪ জানুয়ারি, ২০২০ ২১:২৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



‘মুজিববর্ষে দাবি জানাই, সবার হাতে বই চাই’

সড়কে পাশে দাঁড়িয়েছে শতাধিক শিক্ষার্থী। কারো হাতে বই। কারো হাতে বই পড়ার দাবি সম্বলিত হাতে লেখা ফেস্টুন। এরপর হলো আলোচনা। সেখানেও দাবি উঠলো বই পড়ার। আলোকিত মানুষ হতে হলে বই পড়ার বিকল্প নেই বলে সবাই কণ্ঠ মেলালেন।

আয়োজনটি ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগরের। পৌর এলাকার ভোলাচংয়ের ‘গুঞ্জন পাঠাগার’র আয়োজনটিতে অংশ নেন কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয় ও স্কুল পড়ুয়া শতাধিক শিক্ষার্থী। মূলত বই পড়ায় সচেতনতা গড়ে তুলতে পাঠাগারটির এই আয়োজন।

আজ শুক্রবার বিকেলে পাঠাগারের সামনে মানববন্ধন করেন শিক্ষার্থীরা। মানববন্ধনে অংশ নেওয়া শিক্ষার্থীদের হাতে থাকা ফেস্টুনে লেখা ছিলো, ‘মুজিব বর্ষে দাবি জানাই সবার হাতে বই চাই’, ‘আমাকে মোবাইল নয় বই দিন’, ‘বই পড়বো জীবন গড়বো’, ‘পড়িলে বই আলোকিত হই, না পড়িলে বই অন্ধকারে রই’, ‘আমি টাকা চাই না বই চাই’, ‘আমরা যুদ্ধ চাই না বই চাই’, এসো বই পড়ি আলোকিত জীবন গড়ি’, ‘আমি দুর্নীতিবাজ হতে চাই না আলোকিত মানুষ হতে চাই,’ ‘মাদক ছাড় বই ধর’, ‘আমাকে অস্ত্র নয় বই দিন’ ইত্যাদি শ্লোগান।

পরে পাঠাগারে ইসমাইল হোসেন সজলের সভাপতিত্বে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে বক্তব্য রাখেন, হাসিবুল হাসিব, শেখর সাহা, তানবীর সরকার, ইয়ার হোসেন প্রমুখ। বক্তারা বই পড়ার দাবি জানিয়ে আরো কর্মসূচি দেওয়ার ইচ্ছা পোষণ করেন।

আয়োজন সম্পর্কে গুঞ্জন পাঠাগারের প্রতিষ্ঠাতা মো. স্বপন মিয়া বলেন, আলোকিত মানুষ হতে হলে বই পড়ার কোনো বিকল্প নেই। বই পড়ার প্রতি সবাইকে আগ্রহ করতে আমাদের এ উদ্যোগ। সারা দেশে এ ধরনের উদ্যোগ নেওয়া হলে মানুষের মাঝে সচেতনতা বাড়বে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা