kalerkantho

রবিবার  । ১৫ চৈত্র ১৪২৬। ২৯ মার্চ ২০২০। ৩ শাবান ১৪৪১

গরম তরকারিতে স্বামীর লাথি, পুড়ল গৃহবধূর শরীর

আঞ্চলিক প্রতিনিধি, পাবনা   

২১ জানুয়ারি, ২০২০ ২৩:১৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



গরম তরকারিতে স্বামীর লাথি, পুড়ল গৃহবধূর শরীর

গৃহবধূ মাছুরা খাতুন

পাবনার সাঁথিয়া উপজেলায় স্বামীর ছুঁড়ে দেওয়া গরম তরকারিতে মাছুরা খাতুন (২৪) নামের এক গৃহবধূর শরীরের বিভিন্ন অংশ ঝলসে গেছে। এ ঘটনায় ওই গৃহবধূ সাঁথিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হয়েছেন। আজ মঙ্গলবার (২১ জানুয়ারি) সকালে উপজেলার কাশিনাথপুর ইউনিয়নের কলাগাছি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও আহত গৃহবধূ সূত্রে জানা যায়, বছর পাঁচেক আগে সাঁথিয়া উপজেলার শিবরামবাড়ী কল্যাণপুর গ্রামের দিনমজুর সোনাই মোল্লার মেয়ে মাছুরা খাতুনের (২৪) সঙ্গে কলাগাছি গ্রামের রতন আলীর (২৮) বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে স্বামী ও তাঁর বাড়ির লোকজন গৃহবধূ মাছুরাকে প্রায়ই নানা অজুহাতে নির্যাতন করতেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

আজ মঙ্গলবার রান্না করা নিয়ে শাশুড়ি দুলি বেগম ও স্বামী রতন আলী মাছুরাকে গালিগালাজ করতে থাকেন। এক পর্যায়ে স্বামী রতন আলী মাছুরার পাশে থাকা গরম তরকারির পাত্রে লাথি দিলে তা মাছুরার শরীরে গিয়ে পড়ে। এতে মাছুরার শরীরের বিভিন্ন অংশ ঝলসে যায়। পরে তার আর্তচিৎকারে লোকজন ছুটে এসে তাকে উদ্ধার করে সাঁথিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে ভর্তি করেন।

এ ব্যাপারে সাঁথিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আসাদুজ্জামান বলেন, ‘আহত গৃহবধূর বাবা এ ঘটনায় থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়ে কিছু তথ্য সংগ্রহ করা হয়েছে। এর পরেও আমি হাসপাতালে গিয়ে ওই গৃহবধূকে সরেজমিনে দেখে ও কথা বলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেব।’ 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা