kalerkantho

বুধবার । ১৩ ফাল্গুন ১৪২৬ । ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০। ১ রজব জমাদিউস সানি ১৪৪১

জনতার হাতে আটক পাঁচ গরুচোর

ঘাটাইল (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি   

১৮ জানুয়ারি, ২০২০ ২২:৩৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



জনতার হাতে আটক পাঁচ গরুচোর

জামালপুর থেকে চুরি করা গরু নিয়ে তারা যাচ্ছিল ঢাকায়। কিন্তু পথিমধ্যে টাঙ্গাইলের ঘাটাইলে ধরা পড়েছে পাঁচ গরুচোর। চারটি গরু ও তাদের ব্যবহৃত গাড়িসহ পুলিশে সোর্পদ করেছেন স্থানীয় জনতা। শনিবার সকাল নয়টার দিকে উপজেলার কামালপুর নামক স্থানে এ ঘটনা ঘটে।

সূত্র জানায়, একটি পিকআপ (ঢাকা-মেট্রো-ন ১৬-১৯৮৫) নিয়ে কয়েকজন ঢাকার দিকে যাচ্ছিল। ত্রিপল দিয়ে ঢাকা গাড়িটিতে ৪টি গরু ছিল। ঘাটাইল আষাড়িয়া চালা নামক স্থানে তারা থামলে এলাকাবাসীর সন্দেহ হয়। তাদের বিভিন্ন বিষয় নিয়ে প্রশ্ন করতেই চালক দ্রুত গাড়ি নিয়ে পালানোর চেষ্টা করে। উত্তেজিত লোকজন তাদের ধাওয়া করেন। একপর্যায়ে পিকআপটি সাগরদিঘী-ঘাটাইল সড়কের কামালপুর নামক স্থানে খানাখন্দে আটকে যায়। তখন জনতা গাড়িসহ পাঁচ গরুচোরকে আটকে করেন।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদেই আটক ব্যক্তিরা গরু চুরির কথা স্বীকার করে নেয়। এরপর তাদের আষাড়িয়া চালা বাজারে নিয়ে খবর দেয়া হয় পুলিশে। ধলাপাড়া পুলিশ ফাড়ি থেকে একটি টিম পৌছে তাদের আটক করে ঘাটাইল থানায় নিয়ে যায়।

আটক গরুচোর মোক্তার হোসেনের (৩০) বাড়ি জামালপুর জেলার সদর উপজেলার তুলসীপুর গ্রামে। তার পিতা মৃত মইন উদ্দিন। তার সহযোগী লাল চানের (২০) বাড়ি একই গ্রামে। এছাড়া আটক করা হয় শাবাজপুর গ্রামের আব্দুল হকের ছেলে রাজু (৫২), শেরপুর জেলার শ্রীবরদী উপজেলার বটপুর গ্রামের মতিউর রহমানের ছেলে ফারুক হোসেন (২০) ও  চৈতলি গ্রামের ছামেদ আলীর ছেলে মাখনকে (২০)। তারা জামালপুর থেকে চারটি গরু চুরি করে ঢাকায় বিক্রির জন্য নিয়ে যাচ্ছিল বলে স্বীকার করেছে। এ বিষয়ে মামলা দায়ের প্রক্রিয়াধীন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা