kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৮ জানুয়ারি ২০২০। ১৪ মাঘ ১৪২৬। ২ জমাদিউস সানি ১৪৪১     

মধ্যনগরে নিখোঁজের তিন দিন পর শ্রমিকের লাশ উদ্ধার

হাওরাঞ্চল প্রতিনিধি   

১৫ ডিসেম্বর, ২০১৯ ২০:০৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



মধ্যনগরে নিখোঁজের তিন দিন পর শ্রমিকের লাশ উদ্ধার

সুনামগঞ্জের ধর্মপাশা উপজেলার মধ্যনগর থানাধীন গোমাই নদীতে গোসল করতে গিয়ে পানিতে ডুবে নিখোঁজ হওয়ার তিনদিন পর লিংডন নকরেক (১৮) নামে এক ইটভাটা শ্রমিকের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

শনিবার রাতে উপজেলার সুমেশ্বরী নদী থেকে ভাসমান অবস্থায় ওই শ্রমিকের লাশটি উদ্ধার করে মধ্যনগর থানা পুলিশ। মৃত লিংডন পাশের নেত্রকোণা জেলার দূর্গাপুর পৌর শহরের গাজীপুর-কালকিয়াপুর এলাকার কবির চিরানের ছেলে।

এর আগে গত বৃহস্পতিবার সকাল ১১টার দিকে মধ্যনগর থানাধীন গোমাই নদীতে গোসল করতে গিয়ে পানিতে ডুব দিয়ে নিখোঁজ হয় ওই ইটভাটার শ্রমিক লিংডন নকরেক।

মধ্যনগর থানার ওসি মো. সেলিম নেওয়াজ জানান, গত ৬ ডিসেম্বর মধ্যনগর থানাধীন বিএসএম নামক একটি ইটভাটায় আগুন ধরানোর শ্রমিক হিসেবে কাজে যোগদান করে লিংডন। বৃহস্পতিবার সকাল ১১টার দিকে ওই ইটভাটার ৫-৬ জন শ্রমিক একই সঙ্গে তারা পাশের গোমাই নদীতে নেমে গোসল করছিল। গোসলের এক পর্যায়ে লিংডন নদীতে ডুব দিয়ে আর ভাসেনি। এ সময় তার সাথে গোসল করতে আসা অন্যান্য শ্রমিকরা বিষয়টি টের পেয়ে তারা নদীতে অনেক খোঁজাখুজি করেও তার কোনো সন্ধ্যান পায়নি। পরে তারা বিষয়টি পুলিশকে জানায়।

ওসি আরো জানান, এরপর থেকেই পুলিশ স্থানীয় লোকজনদের নিয়ে ওই নদীতে নৌকা নিয়ে জাল ফেলে অনেক খোঁজাখুজির প্রায় তিনদিন পর শনিবার রাত ১০টার দিকে পাশের সুমেশ্বরী নদীতে লিংডনের ভাসমান লাশ দেখতে পেয়ে স্থানীয়রা বিষয়টি পুলিশকে জানায়। পরে পুলিশ ওই নদী থেকে তার ভাসমান লাশটি উদ্ধার করে রবিবার সকালে ময়না তদন্তের জন্য লিংডনের মৃতদেহ সুনামগঞ্জ আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে বলেও জানান ওসি।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা