kalerkantho

সোমবার। ২৭ জানুয়ারি ২০২০। ১৩ মাঘ ১৪২৬। ৩০ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪১     

খাদ্যের সন্ধানে লোকালয়ে এসে ধরা পড়ল মেছো বাঘ

বড়লেখা (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি   

৮ ডিসেম্বর, ২০১৯ ১৯:২৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



খাদ্যের সন্ধানে লোকালয়ে এসে ধরা পড়ল মেছো বাঘ

মৌলভীবাজারের বড়লেখায় পোষা হাঁস খেতে এসে ধরা পড়ে একটি মেছো বাঘ। রবিবার (৮ ডিসেম্বর) ভোররাতে উপজেলার দাসেরবাজার ইউনিয়নের দক্ষিণ লঘাটি গ্রামের রাসেন্দ্র কুমার দাসের বাড়িতে মেছো বাঘটি ধরা পড়ে। এদিন বিকেল সাড়ে তিনটায় বন্যপ্রাণী ব্যবস্থাপনা ও প্রকৃতি সংরক্ষণ বিভাগ মৌলভীবাজারের লোকজন মেছো বাঘটিকে উদ্ধার করে। 

বনবিভাগ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, লঘাটি গ্রামের রাসেন্দ্র কুমার দাসের বসত ঘরের পাশে একটি হাঁস রাখার ঘর আছে। রাতে সেখানে তাঁর পোষা হাঁসগুলো রাখেন। রবিবার ভোররাতে মেছো বাঘটি ওই ঘরে হাঁস খেতে আসে। এক সময় পরিবারের লোকজন হাঁসের ঘরে শব্দ পেয়ে টর্চ লাইট জ্বালিয়ে দেখেন মেছো বাঘটি ভেতরে হাঁস খাচ্ছে। দ্রুত তারা বাইরে থেকে হাঁসের ঘরের দরজা আটকে দেন। এতে মেছো বাঘটি আর বেরোতে পারেনি। খবর দেওয়ায় হয় বন বিভাগের বড়লেখা কার্যালয়ে।

সকালে স্থানীয়ভাবে খবর পেয়ে বন বিভাগের বড়লেখা রেঞ্জের সহযোগী কর্মকর্তা শেখর রঞ্জন দাস ওই বাড়িতে যান। এরপর বন্য প্রাণী ব্যবস্থাপনা ও প্রকৃতি সংরক্ষণ বিভাগ মৌলভীবাজার কার্যালয়ে খবর দেন। সেখান থেকে লোকজন এসে বিকেল সাড়ে তিনটার দিকে মেছো বাঘটিকে হাঁসের ঘর থেকে উদ্ধার করেন। পরে মেছো বাঘটি লাউয়াছড়া উদ্যানে অবমুক্ত করার জন্য নিয়ে যাওয়া হয়।

বনবিভাগের বড়লেখা রেঞ্জের সহযোগী রেঞ্জ কর্মকর্তা শেখর রঞ্জন দাস বলেন, ‘বন্যপ্রাণী ব্যবস্থাপনা ও প্রকৃতি সংরক্ষণ বিভাগের লোকজন মেছো বাঘটি উদ্ধার করে নিয়ে গেছেন। মেছো বাঘটি প্রায় আড়াইফুট লম্বা হবে। সম্ভবত খাদ্যের সন্ধানে লোকালয়ে এসে ধরা পড়েছে। ওই বাড়ির দুটি পোষা হাঁস খেয়েছে। এটিকে লাউয়াছড়া উদ্যানে অবমুক্ত করা হবে।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা