kalerkantho

সোমবার । ০৯ ডিসেম্বর ২০১৯। ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ১১ রবিউস সানি ১৪৪১     

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক অবরোধ, যাত্রীদের চরম দুর্ভোগ

আসাদুজ্জামান নূর, সিদ্ধিরগঞ্জ   

২০ নভেম্বর, ২০১৯ ১২:৪৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক অবরোধ, যাত্রীদের চরম দুর্ভোগ

নতুন সড়ক পরিবহন আইন বাতিলের দাবিতে নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে পরিবহন শ্রমিকদের ধর্মঘট চলছে। বুধবার সকাল সোয়া ছয়টা থেকে নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জের শিমরাইল ও সাইনবোর্ড এলাকায় একদল পরিবহন শ্রমিক সড়কে অবস্থান নেয়। পরে তারা ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের সাইনবোর্ডে চলাচলরত গাড়ি আটকে দেয় এবং গাড়িগুলো থেকে চালকদের নামিয়ে গাড়ির চাবি নিয়ে নেয়। এরপরে মহাসড়কের দুই পাশে গাড়িগুলোকে এলোমেলো করে রেখে রাস্তা অবরোধ করে রাখে।

গতকাল বুধবার সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত সরজমিনে শিমরাইল ও সাইনবোড এলাকায় গিয়ে দেখা যায়, সকালে অনেক শিক্ষার্থীরা তাদের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে যাওয়ার জন্য ঘর থেকে বের হয়। কোন প্রকার যানবাহন না চলায় অপেক্ষা করে তারা বাড়িতে চলে যেতে বাধ্য হয়।

মতিঝিল অফিসে যাওয়ার জন্য অপেক্ষারত কর্মকর্তা আজিজুল হক বলেন, অফিসে যাওয়ার জন্য সকাল ৭টায় বাসা থেকে বের হই। সকাল ৯টা পর্যন্ত কোনোপ্রকার যানবাহন না পেয়ে পায়ে হেটে অফিসে যাওয়ার জন্য রওয়ানা হই।

এ বিষয় জানতে চাইলে নারায়ণগঞ্জ ট্রাফিক পুলিশের টিআই (প্রশাসন) মোল্লা তাসলিম বলেন, নতুন সড়ক পরিবহন আইন বাতিলের দাবিতে শ্রমিকরা সড়ক অবরোধ করে। এদিকে পূর্ব ঘোষণা ছাড়াই শ্রমিকদের ধর্মঘট ও সড়ক অবরোধের কারণে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের শিমরাইল এলাকায় সকল প্রকার যানবাহন চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। এতে কাঁচপুর সেতু এলাকা থেকে দাউদকান্দি সেতু পর্যন্ত উভয় পাশে দীর্ঘ যানজটের সৃষ্টি হয়। এতে করে ভোগান্তিতে পড়েছে দূরপাল্লার যাত্রীসহ বিভিন্ন কর্মস্থানে যাতায়াতরতরা।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা