kalerkantho

শুক্রবার । ০৬ ডিসেম্বর ২০১৯। ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ৮ রবিউস সানি ১৪৪১     

স্বামীর পরকীয়ার খবরে আখাউড়ায় স্ত্রীর আত্মহত্যা

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি   

১৭ নভেম্বর, ২০১৯ ১৭:২৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



স্বামীর পরকীয়ার খবরে আখাউড়ায় স্ত্রীর আত্মহত্যা

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়ায় সুমনা আক্তার (২৮) নামে এক নারী আত্মহত্যা করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। শনিবার সন্ধ্যায় বাবার বাড়ি উপজেলার মোগড়ায় তিনি এক ধরণের কিটনাশক পান করলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাতে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা সদর হাসপাতালে মারা যান। আজ রবিবার দুপুরে সদর হাসপাতাল মর্গে তার লাশের ময়না তদন্ত সম্পন্ন হয়।

মারা যাওয়া সুমনা নোয়াখালীর জেলার সোনাইমুড়ি উপজেলার আবুল কাসেম পাটোয়ারির ছেলে মো. পারভেজ আলমের স্ত্রী ও আখাউড়া উপজেলার মোগড়া গ্রামের আব্দুল হালিমের মেয়ে। ওই দম্পতির দুই ছেলে সন্তান রয়েছে। পারভেজ ঢাকায় টাইলস মিস্ত্রির কাজ করেন। রবিবার বিকেলে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত আখাউড়া থানায় কোনো অভিযোগ দায়ের হয়নি।

সুমনার মামা মো. ইয়াছিন ও চাচাতো ভাই মো. ফারুক জানান, সুমনা তাঁর স্বামীর সঙ্গে থেকে গত দুদিন আগে ঢাকা থেকে আসেন। শনিবার সন্ধ্যায় তিনি চালে দেওয়ার জন্য রাখা ট্যাবলেট খেয়ে অসুস্থ হয়ে পড়েন। পরে প্রথমে তাকে আখাউড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ও পরে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় নেওয়া হয়। স্বামী অন্যত্র বিয়ে করেছে কিংবা স্বামীর পরকীয়া আছে- এমন বিষয় জানতে পেরে তিনি আত্মহত্যার পথ বেছে নেন।

অভিযুক্ত পারভেজ বলেন, কয়েকমাস ধরে স্ত্রীর সঙ্গে আমার বনিবনা নাই। পাঁচদিন আগে সে ঢাকায় এসে হাজির হয়। আমার বিরুদ্ধে অন্যজনের সঙ্গে সম্পর্ক থাকার অভিযোগ আনে। তখন আমি বলি রাগ করে এমন সম্পর্ক করেছিলাম। তবে এখন আর সম্পর্ক নেই। আমাকে যেন মাফ করে দেয় সেই কথাও বলি। যাওয়ার সময় কিংবা গিয়েও আমার সঙ্গে ভালোভাবে কথা বলে। কিন্তু এরপরও কেন সে এমন করলো বুঝতে পারছি না।

আখাউড়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. রসুল আহমেদ নিজামী রবিবার বিকেলে জানান, এমন একটি খবর আমরা পেয়েছি। তবে এ বিষয়ে লিখিত কোনো অভিযোগ কেউ দেয়নি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা