kalerkantho

সোমবার । ১৬ ডিসেম্বর ২০১৯। ১ পোষ ১৪২৬। ১৮ রবিউস সানি                         

চান্দের গাড়ি ও লেগুনার প্রতিযোগিতায় শিশুর মৃত্যু

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি    

১৪ নভেম্বর, ২০১৯ ১৪:১৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



চান্দের গাড়ি ও লেগুনার প্রতিযোগিতায় শিশুর মৃত্যু

হবিগঞ্জের শায়েস্তাগঞ্জ উপজেলায় চান্দের গাড়ি ও লেগুনার মধ্যে আগে যাওয়ার প্রতিযোগিতায় চাঁদনী আক্তার (৬) নামে এক শিশুর মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। এদিকে দুর্ঘটনার পর গাড়ি নিয়ে পালিয়ে যায় ঘাতকচালক।

নিহত চাঁদনী উপজেলার নূরপুর এলাকার ফরহাদ মিয়ার মেয়ে ও নুরপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রথম শ্রেণির ছাত্রী।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, বেলা ১১টায় ওলিপুর থেকে হবিগঞ্জ যাচ্ছিল একটি যাত্রীবাহী লেগুনা। এ সময় পেছনে থাকা চান্দের গাড়িটি দীর্ঘক্ষণ ধরে লেগুনার আগে যাওয়ার চেষ্টা করছিল। এক পর্যায়ে লেগুনাকে ওভারটেক করতে গিয়ে বাড়ির পার্শ্ববর্তী রাস্তার ফুটপাতে থাকা চাঁদনীকে চাপা দিয়ে পালিয়ে যায়। এ সময় ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় মেয়েটির। এ ঘটনায় হবিগঞ্জ-শায়েস্তাগঞ্জ সড়ক অবরোধ করে রাখে উত্তেজিত জনতা। প্রায় আধাঘন্টা পরে শায়েস্তাগঞ্জ থানা পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করে।

স্থানীয়রা জানান, ওই সড়কে চলমান চান্দের গাড়ি অনুমোদন ও ফিটনেসবিহীন। লেগুনা, সিএনজিচালিত অটোরিকশা এবং চান্দের গাড়ির মধ্যে আগে যাওয়ার প্রতিযোগিতা সড়কে প্রতিদিনের দৃশ্য। ইতিপূর্বে এক গাড়ি অপরটিকে সাইড না দেওয়ায় সংঘর্ষের ঘটনাও ঘটেছে।

নূরপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ মুখলেছ মিয়া জানান, ওভারটেক করতে গিয়ে ফুটপাতে দাঁড়িয়ে থাকা মেয়েটিকে চাপা দেয় চান্দের গাড়ি। দুর্ঘটনাটি অত্যন্ত মর্মান্তিক ছিল।

শায়েস্তাগঞ্জ থানার ওসি মোজাম্মেল হক এ দুর্ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা