kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১৪ নভেম্বর ২০১৯। ২৯ কার্তিক ১৪২৬। ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

কুলিয়ারচরে মোটরসাইকেলে ট্রাকের ধাক্কা, নিহত ১

ভৈরব (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি    

১৮ অক্টোবর, ২০১৯ ১২:১২ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



কুলিয়ারচরে মোটরসাইকেলে ট্রাকের ধাক্কা, নিহত ১

কিশোরগঞ্জের কুলিয়ারচরে ট্রাক ও মোটরসাইকেল মুখোমুখি সংঘর্ষে মো. শরীফ (১৮) নামে এক মোটরসাইকেল চালক নিহত হয়েছেন। এসময় মোটরসাইকেল আরেক আরোহী হিরণ মিয়া (১৭) গুরুতর আহত হন। স্থানীয়রা মুমূর্ষ অবস্থায় হিরণ মিয়াকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য কুলিয়ারচর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়।  অবস্থার অবনতি ঘটতে থাকলে হিরণ মিয়াকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়। স্থানীয়রা ঘাতক ট্রাকসহ চালক ও হেলপারকে আটক করে কুলিয়ারচর থানা পুলিশের কাছে সোপর্দ করেছে।

স্থানীয়রা জানান, বৃহস্পতিবার বিকাল সাড়ে পাচঁটার সময় দারিয়ারাকান্দি থেকে কুলিয়ারচরের দিকে বেপরোয়া গতিতে ট্রাকটি (ঢাকা মেট্রো-ট ১৪- ৪৪৩৫) ছুটছিল। অপরদিকে, কুলিয়ারচর থেকে দারিয়াকান্দির দিকে মোটরসাইকেল চালিয়ে যাচ্ছিলেন শরীফ। এ সময় দারিয়াকান্দি এলাকায় ট্রাকটি মোটরসাইকেলকে ধাক্কা দিলে ঘটনাস্থলেই মো. শরীফ মারা যান এবং হিরণ মিয়া গুরুতর আহত হন। 

কুলিয়ারচর থানার ওসি আব্দুল হাই তালুকদার জানান, ট্রাকটি বেপরোয়া গতিতে চলছিল। এক পর্যায়ে  মোটরসাইকেলকে ধাক্কা দেয়। আমরা ট্রাকটি আটক করে চালক সজিব ও হেলপার খুর্শিদকে থানায় নিয়ে এসেছি। এ ঘটনায় মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।
==========================================================
১০/পাইপগান, শর্টগানের গুলি উদ্ধার
গফরগাঁওয়ে 'বন্দুকযুদ্ধে' ডাকাত সর্দার নিহত, এসআই আহত
গফরগাঁও (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি

ময়মনসিংহের গফরগাঁওয়ে জেলা গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) সাথে কথিত বন্দুকযুদ্ধে মোতালেব (৪২) নামে আন্তঃজেলা ডাকাত দলের সর্দার নিহত হয়েছেন। এ সময় ডাকাতের গুলিতে ডিবি পুলিশের এসআই আক্রাম হোসেন আহত হন। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে একটি পাইপগান, ১৫ রাউন্ড শর্টগানের গুলি ও ২০ রাউন্ড গুলির খোসা উদ্ধার করেছে। ঘটনাটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত সাড়ে ১২টায় উপজেলার রসুলপুর ইউনিয়নের আঞ্চলিক সড়কে।

নিহত ডাকাত সর্দার মোতালেব উপজেলার ছয়ানী রসুলপুর গ্রামের মৃত কেতু শেখ ওরফে আব্দুল গফুরের ছেলে। মোতালেবের বিরুদ্ধে বিভিন্ন থানায় ৫টির বেশি মামলা রয়েছে।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপারের (গফরগাঁও সার্কেল) কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত সাড়ে ১২টার দিকে ময়মনসিংহ ডিবি পুলিশের দুইটি পৃথক টিম উপজেলার রসুলপুর এলাকায় মাদকবিরোধী বিশেষ অভিযান চালানোর সময় গোপন সূত্রে জানতে পারেন, রসুলপুর আঞ্চলিক সড়কে আন্তঃজেলা ডাকাতদল ডাকাতির প্রস্তুতি নিচ্ছে। পুলিশ দল ঘটনাস্থলে পৌঁছাতেই ডাকাতদল পুলিশের ওপর গুলি করতে থাকে। 
পুলিশ জানায়, ডাকাতদের গুলিতে এসআই আক্রাম হোসেন আহত হন। এ সময় আত্মরক্ষার্থে ডিবি পুলিশ পাল্টা ফাঁকা গুলি চালালে এক পর্যায়ে ডাকাত দল গুলি করতে করতে পালিয়ে যায়। পরে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে আন্তঃজেলা ডাকাত দলের সর্দার মোতালেবকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষণা করেন। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে একটি পাইপগান, ১৫ রাউন্ড শর্টগানের গুলি ও ২০ রাউন্ড গুলির খোসা উদ্ধার করেছে।

গফরগাঁও সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আলী হায়দার চৌধুরী বলেন, নিহত মোতালেব আন্তঃজেলা ডাকাত দলের সর্দার ছিলেন এবং তার নেতৃত্বে দীর্ঘদিন যাবত আঞ্চলিক সড়কে যানবাহনে ডাকাতি করে আসছিল। মোতালেবের বিরুদ্ধে ৫টির বেশি মামলা রয়েছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা