kalerkantho

বুধবার । ২০ নভেম্বর ২০১৯। ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ২২ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

মধুখালীতে নারী মিল শ্রমিকের ক্ষতবিক্ষত লাশ

ফরিদপুর প্রতিনিধি   

১৭ অক্টোবর, ২০১৯ ১৩:১৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



মধুখালীতে নারী মিল শ্রমিকের ক্ষতবিক্ষত লাশ

ফরিদপুরের মধুখালী উপজেলার কামারখালী ইউনিয়নের পশ্চিম আড়পাড়া রাজধরপুর গ্রামের একটি কলাবাগান থেকে কাজলরেখা রানী বিশ্বাস (৩৫) নামে এক নারী শ্রমিকের ক্ষতবিক্ষত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। 

গতকাল বুধবার সন্ধ্যার দিকে লাশটি উদ্ধার করা হয়। নিহত কাজল রেখার বাড়ি মাগুরা জেলার শ্রীপুর থানার বড়াইল গ্রামে। সে ওই গ্রামের রামগোপাল বিশ্বাসের মেয়ে। সে আড়পাড়া প্রাইড জুট মিলে শ্রমিক হিসেবে কর্মরত ছিল। কাজলখোর সাথে তার স্বামীর ছাড়াঝাড়ি হয়ে গেছে। 

পুলিশ জানায়, গত মঙ্গলবার দিবাগত রাত ২টার সময় কাজলরেখা কাজে যাবে বলে ঘর হতে বের হয়। এরপর থেকে সে নিখোঁজ ছিল। পরে এলাকাবাসী পশ্চিম আড়পাড়া রাজধরপুর গ্রামের একটি কলাবাগানে কাজলরেখার ক্ষতবিক্ষত লাশ দেখে পুলিশে খবর দেয়। এ ঘটনায় নিহত কাজলরেখা রানী বিশ্বাসের মা কল্যানী বিশ্বাস বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের করেছে। 

মধুখালী থানার পরিদর্শক (তদন্ত) সাইফুল ইসলাম জানান, কাজলরেখা আড়পাড়া প্রাইড জুট মিলে রাতের শিফটে কাজে যাবে বলে গত মঙ্গলবার দিবাগত রাত ২টার দিকে ঘর থেকে বের হয়। এরপর গতকাল তার বাড়ির পাশের একটি কলাবাগানে তার লাশ দেখতে পেয়ে স্থানীয়রা পুলিশকে খবর দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ সেখান থেকে কাজলরেখার লাশ উদ্ধার করে। কে বা কারা শ্বাস রোধ করে তাকে হত্যা করেছে। এ ছাড়া ধর্ষণের ব্যাপারটি মনে হচ্ছে তবে সেটি ময়নাতদন্ত ও ডাক্তারি রিপোর্ট পেলে বলা যাবে বলে তিনি জানান। এ ঘটনায় তার মা বাদী হয়ে রাতেই একটি মামলা দায়ের করেছে। তিনি বলেন, পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ফরিদপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠিয়েছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা