kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ২১ নভেম্বর ২০১৯। ৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ২৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

রাজশাহীতে সাবেক ব্যাংক ব্যবস্থাপক গ্রেপ্তার

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী   

১৫ অক্টোবর, ২০১৯ ১৮:৩০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



রাজশাহীতে সাবেক ব্যাংক ব্যবস্থাপক গ্রেপ্তার

সাউথইস্ট ব্যাংকের করা একটি মামলায় ব্যাংকটির রাজশাহী শাখার ব্যবস্থাপক এ এস এম আরিফুল হককে (৬৩) গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গতকাল সোমবার দিবাগত রাতে নগরীর সিপাইপাড়া এলাকায় নিজ বাড়ি থেকে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের কর্মকর্তারা তাকে গ্রেপ্তার করেন।

তার বিরুদ্ধে জালিয়াতি ও প্রতারণার মাধ্যমে এক ব্যবসায়ীর সঙ্গে যোগসাজস করে দুই কোটি পাঁচ লাখ টাকা লুটে নেওয়ার অভিযোগ আনা হয়েছে। ইতোমধ্যেই ব্যাংক কর্তৃপক্ষ তাকে পদ থেকে বহিষ্কার করেছে। 

মামলার আরেক আসামি হলেন ওই ব্যবসায়ী রফিকুল ইসলাম (৪৫)। তবে তিনি পলাতক রয়েছেন। তিনি নগরীর মাস্টারপাড়া এলাকার জেসারত মণ্ডল ছেলে এবং ‘মেসার্স রাকা এন্টার প্রাইজ’ নামের একটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের প্রোপাইটর।

দুদক জানিয়েছে, আরিফুল হক ব্যবস্থাপক থাকাকালে জাল কাগজপত্র হওয়া স্বত্বেও রফিকুল ইসলাম নামের ওই ব্যবসায়ীকে দুই কোটি পাঁচ লাখ টাকা ঋণ দেন। তাই ব্যাংকের পক্ষ থেকে গতবছর রাজশাহীর আদালতে একটি মামলা দায়ের করা হয়। দুদকের সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের একজন কর্মকর্তা মামলাটির তদন্ত করেন। তিনি আসামিদের বিরুদ্ধে রাজশাহী মহানগর দায়রা জজ আদালতে অভিযোগপত্রও দাখিল করেন। আদালত তদন্ত প্রতিবেদন আমলে নিয়ে বিচারের জন্য মামলাটি বিভাগীয় বিশেষ জজ আদালতে পাঠান। মামলাটি দায়ের হওয়ার পর থেকেই আসামিরা পলাতক ছিলেন। এর মধ্যেই সোমবার দিবাগত রাতে বাড়ি ফিরলে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

দুদকের সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের উপপরিচালক জাহাঙ্গীর আলম জানান, তারা জানতে পেরেছেন বিভিন্ন সময় ব্যাংকের টাকা আত্মসাৎ করে বিপুল সম্পত্তির মালিক হয়েছেন আরিফুল হক। তিনি নগরীতে বিশাল অট্টালিকা নির্মাণ করেছেন। চড়েন দামি গাড়িতে। অবৈধ অর্থ দিয়েই আরিফুল হক বাড়ি-গাড়ি করেছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।

জাহাঙ্গীর আলম বলেন, গ্রেপ্তার আরিফুল হকের বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণ সাপেক্ষে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে এবং পলাতক রফিকুল ইসলামকেও গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে। 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা