kalerkantho

রবিবার । ২০ অক্টোবর ২০১৯। ৪ কাতির্ক ১৪২৬। ২০ সফর ১৪৪১                

মনপুরায় আলাউদ্দিন হত্যায় গ্রেপ্তার ৬

চরফ্যাশন (ভোলা) প্রতিনিধি   

১০ অক্টোবর, ২০১৯ ১৬:৪৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



মনপুরায় আলাউদ্দিন হত্যায় গ্রেপ্তার ৬

এজেন্ট মো. আলাউদ্দিন মোল্লা।

ভোলার মনপুরায় ডাচ-বাংলা মোবাইল ব্যাংকের এজেন্ট মো. আলাউদ্দিন মোল্লাকে গলা কেটে হত্যায় জড়িত প্রধান আসামি জয়নালসহ ছয়জনকে গ্রেপ্তার করেছ মনপুরা থানা পুলিশ। এ ব্যাপারে গত ৮ অক্টোবর দৈনিক কালের কণ্ঠে 'মনপুরা ব্যাংকের এজেন্টকে গলা কেটে হত্যা, আটক ২' শিরোনামে একটি সংবাদ প্রকাশিত হয়। এরপর থেকে পুলিশ প্রশাসন আরো নড়েচড়ে বসে।

নিহত ডাচ-বাংলা মোবাইল ব্যাংকের এজেন্ট ও ব্যবসায়ী হলেন উপজেলার হাজিরহাট ইউনিয়নের চরফৈজুদ্দিন গ্রামের বাসিন্দা মো. মজিবুল হক মোল্লার বড় ছেলে মো. আলাউদ্দিন মোল্লা। তিনি চার সন্তানের জনক।

মঙ্গলবার থেকে ওসি ফোরকান আলী হাওলাদারের নেতৃত্বে চিরুনি অভিযান চালিয়ে হত্যার পর এর সাথে জড়িত এজাহারভূক্ত তিন আসামি এজেন্টের দোকানের কর্মচারী দিবাকর সর্মা, মো. আবুল কালাম ও জয়নালকে আটক করা হয়েছে। এ ছাড়া হত্যা করতে ভাড়া করে নিয়ে আসা মো. শামীম, মো. শাহীন, ও মো. মাকছুদকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

নিহতের স্ত্রী রিতু বেগম কান্না জড়িত কণ্ঠে বলেন, যারা আমার স্বামীকে হত্যা করেছে তাদের ফাঁসি দিতে হবে।

এদিকে এই হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে আজ বৃহস্পতিবার ফকিরহাট বাজার ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি ও ইউপি চেয়ারম্যানের শাহারিয়ার চৌধুরী দীপক এর নেতৃত্বে ব্যবসায়ীদের পাশাপাশি স্থানীরা ও বিক্ষোভ ও মানববন্ধন করেন।

মনপুরা থানার ওসি ফোরকান আলী হাওলাদার জানান, ধারনা করা হচ্ছে আলাউদ্দিনের কাছ থেকে টাকা ছিনিয়ে নিতে এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। ২৪ ঘণ্টার মধ্যে হত্যাকারীদেরকে গ্রেপ্তার করেছি। তাদের আদালত থেকে রিমান্ডের পর সকল তথ্য বলা যাবে।

এ ব্যাপারে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ভোলা সদর এস এম মিজানুর রহমান ঘটনাস্থল পরিদর্শনে করে বলেন, গ্রেপ্তারকৃত জয়নালকে জিঙ্গাসাবাদ করা হচ্ছে। অধিকতর তদন্তে রহস্যের উদঘাটন করা হচ্ছে। তদন্তের স্বার্থে  সেগুলোর নাম এখনও বলা যাচ্ছেনা। আমরা এখনও তদন্ত করছি। আমরা প্রকৃত আসামীদের গ্রেফতার করে আইনের আওতায় নিয়ে আসব।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা