kalerkantho

বুধবার । ২৩ অক্টোবর ২০১৯। ৭ কাতির্ক ১৪২৬। ২৩ সফর ১৪৪১                 

ইলিশ রেখে জেলে গেলেন তিনজন

কলাপাড়া (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি   

৯ অক্টোবর, ২০১৯ ১৯:৫০ | পড়া যাবে ১ মিনিটে



ইলিশ রেখে জেলে গেলেন তিনজন

প্রজনন কালীন মা ইলিশ সংরক্ষণে সারাদেশে ইলিশ মাছ ধরা ও বিক্রি নিষিদ্ধ করা হয়েছে । ব্যবসায়ীদের অনেকেই শুনছেন না মানা। অধিক মুনাফার লোভে গোপনে বিক্রি করছেন মজুত করা ইলিশ। পটুয়াখালীর কলাপাড়াতে বুধবার দুপুরে এরকম তিনজনকে হাতেনাতে ধরে সাজা দিয়েছেন ভ্রাম্যমান আদালত।

স্থানীয় সূত্র জানায়, কলাপাড়া উপজেলা প্রশাসন বুধবার সকাল থেকে বিশেষ অভিযান শুরু করে। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মুনিবুর রহমান ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) অনুপ দাসের নেতৃত্বে অভিযান চলাকালে দুপুরে মৎস্য বন্দর মহিপুরের আল্লাহ ভরসা নামের একটি আড়ৎ থেকে জব্দ করা হয় ২৫ মণ ইলিশ। জব্দকরা ইলিশ মাছ দুপুরেই মহিপুর ও আলীপুরের এতিমখানায় বিতরণ করা হয়।

এদিকে ইলিশ সংরক্ষণ ও মজুদ করার অপরাধে আড়ত ম্যানেজার আব্দুল মন্নান ও খালাসী মোহাম্মদ ইউসুফকে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এক বছর করে বিনাশ্রম কারাদন্ড দেন। একই অপরাধের পাশপাশি আড়ৎ মালিক তানভীর আহমেদ লুনা আকনকে সাজা দেয়া হয় মাদক বহনের দায়ে। তাকেও এক বছরের বিনাশ্রম কারাদন্ড দেয়া হয়। দন্ডিতদের বিকালেই কারাগারে পাঠিয়ে দেয়া হয়।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা